The Rising Campus
News Media

হিরো আলমকে থামানো যাবে না : মালেক আফসারী

সোশ্যাল মিডিয়ার কল্যাণে বগুড়ার ছেলে আশরাফুল আলম হয়েছেন ‘হিরো আলম’। এই নামের উপরেই চলে তুমুল আলোচনা। শুরু থেকে এ পর্যন্ত বিভিন্ন সময়ে কখনো অভিনয়-গান-সিনেমা নির্মাণ করে আবার কখনো বিভিন্ন ইস্যুতে বিতর্কিত মন্তব্য করে আলোচনার জন্ম দিয়েছেন। এ কারণে বিভিন্ন সময়ে নেটিজেনদের সমালোচনার শিকারও হয়ে থাকেন হিরো আলম।

সম্প্রতি হাসিওয়ালা সিনেমার নির্মাতা অতিন্দ্র কান্তি কাজুর কবিতা আবৃত্তি করে ফের আলোচনা সৃষ্টি করেন হিরো আলম। বিষয়টি সোসাল মিডিয়াতে আসার পর অনেকেই নেতিবাচক হিসেবে ব্যাখ্যা করেছেন।  হিরো আলমের সার্বিক কর্মকাণ্ড নিয়ে এবার মন্তব্য করেছেন চলচ্চিত্র পরিচালক মালেক আফসারী। তিনি জানিয়েছেন, হিরো আলমের কর্মকাণ্ড নিয়ে যত হাসি-তামাশাই করা হোক না কেন, তাকে থামানো যাবে না। কেউ পারবেন না। পুলিশও পারে না।

কয়েক মাস আগে হিরো আলমকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডাকে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি)। সেই সময় ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেসন্স বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মো. ফারুক হোসেন জানান, হিরো আলম ফেসবুক/ইউটিউব চ্যানেল তথা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার নিজস্ব সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ড, কনটেন্ট শেয়ার করে থাকেন। এসব কনটেন্টের কিছু অংশে বিধিবহির্ভূতভাবে পুলিশের পোশাক পরে আপ’ত্তিজনকভাবে কিছু অভিনয় প্রদর্শিত হয়, যা ডিএমপির দৃষ্টি আকর্ষণ করে।

জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডিবি কার্যালয়ে গত ২১ জুলাই তাকে ডাকা হয়। সেই সময় অনেকে ভেবেছিলেন, হিরো আলম হয়তো আর এমন কর্মকাণ্ড করবেন না! কিন্তু ঘটছে তার  বিপরীত। আসলেই তিনি থামছেন না। জিজ্ঞাসাবাদের দুই মাস পর আবার কবিতা আবৃত্তি করায় নেতিবাচক মন্তব্য করতে শুরু করেছে নেটিজেনদের।

নির্মাতা মালেক আফসারী সেই বিষয় উল্লেখ করে বলেন, পুলিশ তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছিল রবীন্দ্রসংগীত নিয়ে। তখন ভেবেছিলাম, এবার বোধহয় হিরো আলম থামবে। কিন্তু না! পৃথিবীর অর্ধেক ভাষায় গান গেয়ে ফেলেছে সে। কোন ভাষা না জানে। মনে হয় শুধু বার্মিজ ভাষায় গান করেনি। আর সব ভাষাতেই গান গেয়ে ফেলেছে। গানগুলো সে কীভাবে গায়, কেন গায়?

হিরো আলমের কবিতা আবৃত্তির প্রসঙ্গ তুলেন এই নির্মাতা। বলেন, কবিতা আবৃত্তি করল, কবি হয়ে গেল, চশমা পরে, চুল পাকিয়ে, কবিদের মতো একটা চাদর গায়ে জড়িয়ে, এসব কেন? হিরো আলম কেন? আসলে এখানে তার কোনো দোষ নেই। হিরো আলম বলে, মানুষকে আনন্দ দেয়ার জন্যই এসব করে সে। কিন্তু কিছু মানুষ খুব বাজেভাবে সমালোচনা করে তার। সে নিজেকে ভাইরাল করতে পেরেছে। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক চ্যানেল তাকে নিয়ে নিউজ করেছে।

তবে নির্মাতা মালেক আফসারীর ভাষ্য, হিরো আলমকে অনুসরণ করি আমি। তবে আমি হিরো আলম হতে চাই না, কিন্তু তার চেষ্টাকে ফলো করি। সাধুবাদ জানাই। কাউকে ছোট করে দেখার কিছু নেই। তার জন্য মন থেকে দোয়া করি।

আরো পড়ুনঃ জবির অধ্যাপকের কাছে হিরো আলম আবৃত্তিচর্চা করছেন

0
You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.