The Rising Campus
News Media
শুক্রবার, ২৭শে জানুয়ারি, ২০২৩

শরতের আকাশ অনেক স্বচ্ছ ও উঁচু থাকে: ঢাবি ভিসি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেছেন, শরতের আকাশ অনেক স্বচ্ছ ও অনেক উঁচু থাকে। অন্য যেকোনো সময়ের থেকে শরতের আকাশ অনেক গভীর হয়। যখন একটি পরিচ্ছন্ন আকাশ হয় তখন আমাদের দৃষ্টিসীমা বিজ্ঞানসম্মত উপায়ে অনেক দূরে চলে যায়।

শুক্রবার (১৬ সেপ্টেম্বর) বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র শিক্ষক কেন্দ্রের (টিএসসি) পায়রা চত্বরে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানটির আয়োজন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংস্কৃতিক সংগঠন জয়ধ্বনি।

ঢাবি উপাচার্য বলেন, এই শরৎ যেন কখনও বিষণ্ন না হয়, এটা যেন অক্ষুণ্ন থাকে সেদিকে আমাদের সবারই নজর দিতে হবে। এ সময় শরতের আকাশ থেকে মানবিক মূল্যবোধসম্পন্ন ভালো মানুষ হিসেবে গড়ে উঠার শিক্ষা সবাইকে নেওয়ার আহ্বান জানান তিনি।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি গোলাম কুদ্দুছ বলেন, প্রকৃতি আমাদের যে সম্ভার দিয়েছে দুর্ভাগ্যজনকভাবে আমরা সেটিকে ধ্বংস করতে প্রতিনিয়তই ব্যস্ত আছি। আজকে বন উজাড় করে, বৃক্ষ কেটে ফেলে, শিল্পোন্নত দেশগুলো অতিরিক্ত মাত্রায় কার্বন নিঃসরণ করে প্রকৃতির বিপর্যয় ডেকে এনেছে। আমাদের সামর্থ্যের মধ্যে যেটা আছে সেটা দিয়ে হলেও প্রকৃতিকে বাঁচাতে হবে।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক আহকাম উল্লাহ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন সংগীত বিভাগের সহযোগী আধ্যাপক ড. দেবপ্রসাদ দা। এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জয়ধ্বনির সভাপতি শাহরিয়ার কবির অপূর্ব, সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক পার্থ সরকার, ও সংগঠনটির প্রতিষ্ঠাকালীন সাধারণ সম্পাদক সুজন শর্মা, ঢাবি ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন।

0
You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. হোম
  2. স্বায়ত্ত্বশাসিত বিশ্ববিদ্যালয়
  3. শরতের আকাশ অনেক স্বচ্ছ ও উঁচু থাকে: ঢাবি ভিসি

শরতের আকাশ অনেক স্বচ্ছ ও উঁচু থাকে: ঢাবি ভিসি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেছেন, শরতের আকাশ অনেক স্বচ্ছ ও অনেক উঁচু থাকে। অন্য যেকোনো সময়ের থেকে শরতের আকাশ অনেক গভীর হয়। যখন একটি পরিচ্ছন্ন আকাশ হয় তখন আমাদের দৃষ্টিসীমা বিজ্ঞানসম্মত উপায়ে অনেক দূরে চলে যায়।

শুক্রবার (১৬ সেপ্টেম্বর) বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র শিক্ষক কেন্দ্রের (টিএসসি) পায়রা চত্বরে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানটির আয়োজন করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংস্কৃতিক সংগঠন জয়ধ্বনি।

ঢাবি উপাচার্য বলেন, এই শরৎ যেন কখনও বিষণ্ন না হয়, এটা যেন অক্ষুণ্ন থাকে সেদিকে আমাদের সবারই নজর দিতে হবে। এ সময় শরতের আকাশ থেকে মানবিক মূল্যবোধসম্পন্ন ভালো মানুষ হিসেবে গড়ে উঠার শিক্ষা সবাইকে নেওয়ার আহ্বান জানান তিনি।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি গোলাম কুদ্দুছ বলেন, প্রকৃতি আমাদের যে সম্ভার দিয়েছে দুর্ভাগ্যজনকভাবে আমরা সেটিকে ধ্বংস করতে প্রতিনিয়তই ব্যস্ত আছি। আজকে বন উজাড় করে, বৃক্ষ কেটে ফেলে, শিল্পোন্নত দেশগুলো অতিরিক্ত মাত্রায় কার্বন নিঃসরণ করে প্রকৃতির বিপর্যয় ডেকে এনেছে। আমাদের সামর্থ্যের মধ্যে যেটা আছে সেটা দিয়ে হলেও প্রকৃতিকে বাঁচাতে হবে।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক আহকাম উল্লাহ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন সংগীত বিভাগের সহযোগী আধ্যাপক ড. দেবপ্রসাদ দা। এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জয়ধ্বনির সভাপতি শাহরিয়ার কবির অপূর্ব, সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক পার্থ সরকার, ও সংগঠনটির প্রতিষ্ঠাকালীন সাধারণ সম্পাদক সুজন শর্মা, ঢাবি ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন।

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন