The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
শুক্রবার, ১৯শে জুলাই, ২০২৪

ঢাবিতে রাউফুন বসুনিয়ার শাহাদাৎ বার্ষিকী পালিত

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক মেধাবী শিক্ষার্থী ও ছাত্র নেতা রাউফুন বসুনিয়ার ৩৮তম শাহাদাৎ বার্ষিকী আজ ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ সোমবার পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষ্যে সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান শহিদ রাউফুন বসুনিয়ার ভাস্কর্যে পুস্পস্তবক অর্পণ করেন।

পরে এক আলোচনা সভায় উপাচার্য প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন। শহিদ রাউফুন বসুনিয়া স্মৃতি সংসদ এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

শহিদ রাউফুন বসুনিয়া স্মৃতি সংসদের সভাপতি অ্যাডভোকেট রেজাউল করিম হিরণের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. মো. নিজামুল হক ভূইয়া, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. জিনাত হুদা, বিশিষ্ট সাংবাদিক মোজাম্মেল বাবু, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের অধ্যাপক ড. এম অহিদুজ্জামান, বসুনিয়া স্মৃতি সংসদের সাধারণ সম্পাদক হামিদুল আলম সখা এবং শহিদ রাউফুন বসুনিয়ার ভাই নাহিন বসুনিয়া ।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান শহিদ রাউফুন বসুনিয়ার স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে বলেন, সেসময় গণতান্ত্রিক মূল্যবোধকে স্তিমিত করে দেয়ার যে অপচেষ্টা চালানো হয়েছিলো, তারই প্রতিবাদে রাজপথে নেমেছিলেন শহিদ রাউফুন বসুনিয়া। দেশে গণতান্ত্রিক ধারা প্রতিষ্ঠায় শহিদ রাউফুন বসুনিয়ার আত্মত্যাগ নতুন প্রজন্মের মাঝে বিশেষ বার্তা বহন করে যাচ্ছে বলে তিনি উল্লেখ করেন। শহিদ রাউফুন বসুনিয়ার চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত রেখে দেশের উন্নয়নকে আরও এগিয়ে নেয়ার জন্য উপাচার্য তরুণ প্রজন্মের প্রতি আহ্বান জানান।

উল্লেখ্য, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রনেতা রাউফুন বসুনিয়া স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলন চলাকালে ১৯৮৫ সালের ১৩ ফেব্রুয়ারি মুহসীন হল এলাকায় সংঘর্ষের সময় গুলিবিদ্ধ হয়ে শহিদ হন। ১৯৬১ সালের ৩০ আগষ্ট কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলায় জন্ম নেয়া রাউফুন বসুনিয়া ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সমাজবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী ছিলেন।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.