The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
সোমবার, ২৬শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪

জবিতে ফাঁকা আসন ৬২২টি, ষষ্ঠ মেধাতালিকা প্রকাশ

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে (জবি) ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে চার বছর মেয়াদি স্নাতক (সম্মান) ও বিবিএ প্রথম বর্ষে ভর্তির জন্য এখনও ৬২২টি আসন ফাঁকা রয়েছে। আসনগুলোতে শিক্ষার্থী ভর্তিতে ষষ্ঠ মেধাতালিকা এবং পঞ্চম মাইগ্রেশন তালিকা প্রকাশিত হয়েছে।

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে মোট আসন ২ হাজার ৭৬৫টি। মেরিট তালিকা অনুযায়ী, ‘এ’ (বিজ্ঞান) ইউনিটে আসন খালি ছিল ৪৩৩টি। এ ইউনিটে ৩৭১৮ থেকে ৪১৫০ মেধাতালিকা পর্যন্ত বিষয়ের জন্য মনোনীত হয়। এ ছাড়া ‘বি’ (মানবিক) ইউনিটে আসন খালি ছিল ১২৪টি। এই ইউনিটে বিষয় পেয়েছেন ১৫৫১ থেকে ১৭৭৪ পর্যন্ত মেধাতালিকায় থাকা শিক্ষার্থীরা। ‘সি’ (বাণিজ্য) ইউনিটে ৬৪টি সিট ফাঁকা থাকায় ১১২৬ থেকে ১১৯২ পর্যন্ত মেধাতালিকার শিক্ষার্থীরা বিষয়ের জন্য মনোনীত হন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার দপ্তর ও আইটি সেল থেকে আজ বৃহস্পতিবার এ তথ্য জানা গেছে।

ষষ্ঠ মেধাতালিকা থেকে ভর্তি হওয়া যাবে ২৯ জানুয়ারি পর্যন্ত। ভর্তির জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ৩০ জানুয়ারি পর্যন্ত জমা দেয়া যাবে। নির্ধারিত সময়ে টাকা পরিশোধ ও ভর্তি না হলে পরে ভর্তির সুযোগ পাওয়া যাবে না বলেও জানানো হয়েছে।

স্বয়ংক্রিয় মাইগ্রেশন বন্ধ করতে লগইন করে আবেদন ফরমটি ডাউনলোড করে ৩১ জানুয়ারির মধ্যে সংশ্লিষ্ট ডিন অফিসে জমা দিতে হবে। সিট খালি থাকা সাপেক্ষে সপ্তম মেধাতালিকা, সাবজেক্ট ও মাইগ্রেশন প্রকাশ করা হবে।

‘এ’ ইউনিটের জন্য ১৩টি বিভাগে আসনসংখ্যা ৮২৫, ‘বি’ ইউনিটে ১৭ বিভাগে ১ হাজার ২৭০টি আসন রয়েছে৷ ‘সি’ ইউনিটের চারটি বিভাগের আসনসংখ্যা ৫২০টি।

এ ছাড়া সংগীত, চারুকলা ও নাট্যকলা বিভাগে ৪০টি করে এবং ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন বিভাগে ৩০টি আসন রয়েছে।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. প্রচ্ছদ
  2. ক্যাম্পাস
  3. জবিতে ফাঁকা আসন ৬২২টি, ষষ্ঠ মেধাতালিকা প্রকাশ

জবিতে ফাঁকা আসন ৬২২টি, ষষ্ঠ মেধাতালিকা প্রকাশ

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে (জবি) ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে চার বছর মেয়াদি স্নাতক (সম্মান) ও বিবিএ প্রথম বর্ষে ভর্তির জন্য এখনও ৬২২টি আসন ফাঁকা রয়েছে। আসনগুলোতে শিক্ষার্থী ভর্তিতে ষষ্ঠ মেধাতালিকা এবং পঞ্চম মাইগ্রেশন তালিকা প্রকাশিত হয়েছে।

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে মোট আসন ২ হাজার ৭৬৫টি। মেরিট তালিকা অনুযায়ী, ‘এ’ (বিজ্ঞান) ইউনিটে আসন খালি ছিল ৪৩৩টি। এ ইউনিটে ৩৭১৮ থেকে ৪১৫০ মেধাতালিকা পর্যন্ত বিষয়ের জন্য মনোনীত হয়। এ ছাড়া ‘বি’ (মানবিক) ইউনিটে আসন খালি ছিল ১২৪টি। এই ইউনিটে বিষয় পেয়েছেন ১৫৫১ থেকে ১৭৭৪ পর্যন্ত মেধাতালিকায় থাকা শিক্ষার্থীরা। ‘সি’ (বাণিজ্য) ইউনিটে ৬৪টি সিট ফাঁকা থাকায় ১১২৬ থেকে ১১৯২ পর্যন্ত মেধাতালিকার শিক্ষার্থীরা বিষয়ের জন্য মনোনীত হন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার দপ্তর ও আইটি সেল থেকে আজ বৃহস্পতিবার এ তথ্য জানা গেছে।

ষষ্ঠ মেধাতালিকা থেকে ভর্তি হওয়া যাবে ২৯ জানুয়ারি পর্যন্ত। ভর্তির জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ৩০ জানুয়ারি পর্যন্ত জমা দেয়া যাবে। নির্ধারিত সময়ে টাকা পরিশোধ ও ভর্তি না হলে পরে ভর্তির সুযোগ পাওয়া যাবে না বলেও জানানো হয়েছে।

স্বয়ংক্রিয় মাইগ্রেশন বন্ধ করতে লগইন করে আবেদন ফরমটি ডাউনলোড করে ৩১ জানুয়ারির মধ্যে সংশ্লিষ্ট ডিন অফিসে জমা দিতে হবে। সিট খালি থাকা সাপেক্ষে সপ্তম মেধাতালিকা, সাবজেক্ট ও মাইগ্রেশন প্রকাশ করা হবে।

‘এ’ ইউনিটের জন্য ১৩টি বিভাগে আসনসংখ্যা ৮২৫, ‘বি’ ইউনিটে ১৭ বিভাগে ১ হাজার ২৭০টি আসন রয়েছে৷ ‘সি’ ইউনিটের চারটি বিভাগের আসনসংখ্যা ৫২০টি।

এ ছাড়া সংগীত, চারুকলা ও নাট্যকলা বিভাগে ৪০টি করে এবং ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন বিভাগে ৩০টি আসন রয়েছে।

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন