The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
বৃহস্পতিবার, ১৩ই জুন, ২০২৪

ইবি ছাত্রী নির্যাতনের ঘটনায় সিসিটিভি ফুটেজ সরবরাহ করতে ব্যর্থ, তদন্ত কমিটি

নিয়ামতুল্লাহ, ইবিঃ ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) দেশরত্ন শেখ হাসিনা হলে নবীন ছাত্রীকে নির্যাতন ও বিবস্ত্র করে ভিডিও ধারণের ঘটনায় সিসিটিভি ফুটেজ সরবরাহ করতে ব্যর্থ হয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। ফলে ভিডিও ফুটেজ উদ্ধার করতে ব্যর্থ হওয়ার বিষয়ে হল কর্তৃপক্ষের সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের চিহ্নিত করা এবং সিসিটিভি ক্যামেরা আরো কার্যকরভাবে পরিচালনার বিষয়ে প্রফেসর ড. আহসানুল আম্বিয়াকে দায়িত্ব দিয়ে এক সদস্য বিশিষ্ট কমিটি দেয় কর্তৃপক্ষ।

রবিবার (১২ই মার্চ) ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার এইচ এম আলী হাসান স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রজ্ঞাপন সূত্রে, গত ১১ ও ১২ ফেব্রুয়ারী রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের দেশরত্ন শেখ হাসিনা হলে সংঘটিত ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট ডিভিশনের রিট পিটিশন নম্বর- ২১০৫ /২০২৩ নির্দেশনা (IX) এর আলোকে হল কর্তৃপক্ষ ভিডিও ফুটেজ সরবরাহ করতে ব্যর্থ হয়েছে। এ বিষয়ে হল প্রশাসনের সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের চিহ্নিত করা এবং কিভাবে ক্যামেরা সিস্টেম আরও কার্যকরভাবে পরিচালনা করা যায় সে বিষয়ে এক সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এতে আইসিটি সেলের পরিচালক অধ্যাপক ড. আহসান- উল-আম্বিয়া কে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। কমিটিকে আগামী ০৭ (সাত) কার্যদিবসের মধ্যে কর্তৃপক্ষের নিকট প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে।

এ বিষয়ে অধ্যাপক ড. আহসান-উল-আম্বিয়া বলেন, চিঠিটা হাতে পেয়েছি। এ বিষয়ে হল কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলেছি। আগামীকাল আমি হলে যাবে এবং বিষয়টি দেখবো।

প্রসঙ্গত, গত ১১ ও ১২ই ফেব্রুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয়ের দেশরত্ন শেখ হাসিনা হলে দুই দফায় এক নবীন ছাত্রীকে রাতভর নির্যাতন ও বিবস্ত্র করে ভিডিও ধারণের অভিযোগ উঠে শাখা ছাত্রলীগ সহ-সভাপতি সানজিদা চৌধুরী অন্তরা ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে। ভুক্তভোগীর লিখিত অভিযোগের পর বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন, হল প্রশাসন ও শাখা ছাত্রলীগ কতৃক পৃথক তিনটি তদন্ত কমিটি গঠিত হয়। এছাড়া হাইকোর্টের নির্দেশে বিচার বিভাগীয় তদন্ত কমিটি গঠন করে কুষ্টিয়া জেলা প্রশাসন।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.