৫২ উপজেলাকে গৃহহীন–ভূমিহীনমুক্ত ঘোষণা

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সারা দেশে আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের তৃতীয় পর্যায়ের দ্বিতীয় ধাপের আওতায় ভূমিহীন ও গৃহহীনদের মধ্যে আরও ২৬ হাজার ২২৯টি জমিসহ ঘর হস্তান্তর করেছেন।

প্রধানমন্ত্রী আজ বৃহস্পতিবার সকালে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ভার্চ্যুয়ালি এই ভূমিহীন-গৃহহীন মানুষের কাছে ঘরের দলিল ও চাবি হস্তান্তর করেন। প্রধানমন্ত্রী গণভবন থেকে ভার্চ্যুয়ালি পাঁচ জেলার পাঁচটি স্থানের সঙ্গে সংযুক্ত ছিলেন।

দেশে একজন মানুষও গৃহহীন, ভূমিহীন থাকবে না’—প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এই অঙ্গীকার বাস্তবায়নের অংশ হিসেবে এর মাধ্যমে দেশের ৪৯২টি উপজেলার ১ লাখ ৩১ হাজার ৬৪৫ জন মানুষ নিজের ঠিকানা পেল।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা অনুষ্ঠানে পঞ্চগড় ও মাগুরা জেলার সবগুলো উপজেলাসহ দেশের ৫২টি উপজেলাকে গৃহহীন ও ভূমিহীনমুক্ত উপজেলা হিসেবেও ঘোষণা দেন।

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব আহমদ কায়কাউস গত সোমবার এক প্রেস ব্রিফিংয়ে জানান, আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের তৃতীয় পর্যায়ে দেশব্যাপী মোট ৬৭ হাজার ৮০০টি ঘর দেওয়া হচ্ছে।

আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের প্রথম পর্যায়ে ২০২১ সালের ২৩ জানুয়ারি ৬৩ হাজার ৯৯৯ গৃহহীন-ভূমিহীন পরিবার মাথার ওপর ছাদ পায়। আর প্রকল্পের দ্বিতীয় পর্যায়ে গত বছরের ২০ জুন ৫৩ হাজার ৩৩০টি পরিবার ঘর পায়।

আশ্রয়ণ-২ প্রকল্পের তৃতীয় পর্যায়ে সরকার ঘরগুলোকে অধিকতর টেকসই ও জলবায়ু-সহিষ্ণু করে গড়ে তুলতে নকশা পরিবর্তন করে। এতে ঘরগুলোর নির্মাণ খরচ বেড়ে যায়। এ জন্য এখন গৃহহীন-ভূমিহীন মানুষেরা দুই শতাংশ জমির ওপর আরও উন্নতমানের টিনশেডের আধা পাকা ঘর পাচ্ছেন।