The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
শনিবার, ২রা মার্চ, ২০২৪

সিলিং ফ্যান পড়ে আহত নোবিপ্রবির ২ শিক্ষার্থী

নোবিপ্রবি প্রতিনিধি:নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (নোবিপ্রবি) সিলিং ফ্যান খুলে পড়ে বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের দুই শিক্ষার্থী আহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (৩ নভেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের বীর মুক্তিযোদ্ধা হাজী মোহাম্মদ ইদ্রিস অডিটোরিয়াম ভবনের ৫০৪ নম্বর কক্ষে এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন, বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের (বিএমবি) ২০১৮-১৯ সেশনের মাহফুজুল হক ও রুবিনা রাহা। তাদের মধ্যে একজনের মাথা ফেটে গেছে আর অন্যজন হাতে আঘাত পেয়েছেন। চিকিৎসার জন্য একজনকে নোয়াখালীর পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টারে পাঠানো হয় সিটিস্ক্যান করানোর জন্য। অন্যজনকে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিক্যাল সেন্টারে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, বিভাগের ক্লাস টেস্ট পরীক্ষা শেষে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে উত্তরপত্র নেওয়ার সময় এ ঘটনা ঘটে। পরে আহতদের বিভাগের অন্য শিক্ষার্থীদের সহযোগিতায় বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাম্বুলেন্স এনে দ্রুত চিকিৎসা জন্য তাদের হাসপাতালে পাঠানো হয়। হাসপাতাল থেকে তাকে সিটিস্ক্যানের জন্য পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টারে পাঠানো হয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের চেয়ারম্যান ড.সুবোধ কুমার সরকার বলেন, আমি জানতে পেরেছি সিলিং ফ্যান পড়ে আমাদের দুইজন শিক্ষার্থী আহত হয়েছে। তখন আমি ঘটনাস্থলে ছিলাম না, পাশে ক্লাস নিচ্ছিলাম। আমাদের বিভাগের ক্লাস রুম সংকট রয়েছে, তাই আমাদের এক ম্যাম অন্য বিভাগে শ্রেণিকক্ষে ক্লাস টেস্ট নিচ্ছিলেন, নেওয়া শেষে এই ঘটনা ঘটে। একজন শিক্ষার্থী মাথায় আঘাত পেয়েছে তাই আমরা তাকে নোয়াখালীতে পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টারে সিটিস্ক্যান করেছি। আগামীকাল রিপোর্ট আসবে। অন্যজনকে বিশ্ববিদ্যালয় মেডিকেল সেন্টারে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. প্রচ্ছদ
  2. ক্যাম্পাস
  3. সিলিং ফ্যান পড়ে আহত নোবিপ্রবির ২ শিক্ষার্থী

সিলিং ফ্যান পড়ে আহত নোবিপ্রবির ২ শিক্ষার্থী

নোবিপ্রবি প্রতিনিধি:নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (নোবিপ্রবি) সিলিং ফ্যান খুলে পড়ে বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের দুই শিক্ষার্থী আহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (৩ নভেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের বীর মুক্তিযোদ্ধা হাজী মোহাম্মদ ইদ্রিস অডিটোরিয়াম ভবনের ৫০৪ নম্বর কক্ষে এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন, বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের (বিএমবি) ২০১৮-১৯ সেশনের মাহফুজুল হক ও রুবিনা রাহা। তাদের মধ্যে একজনের মাথা ফেটে গেছে আর অন্যজন হাতে আঘাত পেয়েছেন। চিকিৎসার জন্য একজনকে নোয়াখালীর পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টারে পাঠানো হয় সিটিস্ক্যান করানোর জন্য। অন্যজনকে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিক্যাল সেন্টারে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, বিভাগের ক্লাস টেস্ট পরীক্ষা শেষে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে উত্তরপত্র নেওয়ার সময় এ ঘটনা ঘটে। পরে আহতদের বিভাগের অন্য শিক্ষার্থীদের সহযোগিতায় বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাম্বুলেন্স এনে দ্রুত চিকিৎসা জন্য তাদের হাসপাতালে পাঠানো হয়। হাসপাতাল থেকে তাকে সিটিস্ক্যানের জন্য পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টারে পাঠানো হয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বায়োকেমিস্ট্রি এন্ড মলিকুলার বায়োলজি বিভাগের চেয়ারম্যান ড.সুবোধ কুমার সরকার বলেন, আমি জানতে পেরেছি সিলিং ফ্যান পড়ে আমাদের দুইজন শিক্ষার্থী আহত হয়েছে। তখন আমি ঘটনাস্থলে ছিলাম না, পাশে ক্লাস নিচ্ছিলাম। আমাদের বিভাগের ক্লাস রুম সংকট রয়েছে, তাই আমাদের এক ম্যাম অন্য বিভাগে শ্রেণিকক্ষে ক্লাস টেস্ট নিচ্ছিলেন, নেওয়া শেষে এই ঘটনা ঘটে। একজন শিক্ষার্থী মাথায় আঘাত পেয়েছে তাই আমরা তাকে নোয়াখালীতে পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টারে সিটিস্ক্যান করেছি। আগামীকাল রিপোর্ট আসবে। অন্যজনকে বিশ্ববিদ্যালয় মেডিকেল সেন্টারে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন