শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্দোলনকারীদের সঙ্গে আলোচনায় বসতে চান শিক্ষামন্ত্রী

সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযু‌ক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ফরিদ উদ্দিন আহমেদের পদত্যাগের দাবিতে চলা আন্দোলনকারীদের সঙ্গে আলোচনায় বসার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি। আন্দোলনকারীদের প্রতিনিধিদল যত দ্রুত আসবে, তত তাড়াতাড়ি আলোচনায় বসতে চান তিনি।

আজ শুক্রবার বিকেলে রাজধানীর মতিঝিলে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ডে এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে শিক্ষামন্ত্রী এই কথা বলেন।

দীপু মনি বলেন, ‘আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব বিষয়ে সরাসরি হস্তক্ষেপ করতে চাই না। তবে সেখানে আমাদের শিক্ষার্থীরা অনশন করছেন, কেউ কেউ কিছুটা অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে গেছেন। আমি এখন ডাক্তারের সঙ্গে কথা বলেছি, কারও কোনো আশঙ্কাজনক কিছু নেই। যাঁরা এখনো অনশন চালিয়ে যাচ্ছেন, তাঁদের দু-তিনজনকে হয়তো স্যালাইন দেওয়া হচ্ছে। তাঁদের সঙ্গে আমি কথা বলেছি। আমি চাই, তাঁদের একটি প্রতিনিধিদল যদি পাঠাতে পারেন। তাঁরাও আসতে চান। যত দ্রুত সম্ভব তাঁরা এলে আলাপ-আলোচনা করতে চাই। শিক্ষক সমিতির নেতাদের সঙ্গেও একটু আলাপ করতে চাই।’

আলাপ-আলোচনার মাধ্যমেও যোকোনো সংকট মোকাবিলা করা সম্ভব বলে মনে করেন দীপু মনি।

উপাচার্য ফ‌রিদ উদ্দিন আহমেদের পদত্যাগের দা‌বিতে এক সপ্তাহ ধরে উত্তাল শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়। সর্বশেষ গত বুধবার উপাচার্যের বাসার সামনে আমরণ অনশনে বসেছেন ২৪ শিক্ষার্থী। তাঁদের মধ্যে আজ শুক্রবার দুপুর পর্যন্ত ১১ জন অসুস্থ হয়ে পড়ায় হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আন্দোলনের সূত্রপাত ১৩ জানুয়া‌রি। ওই দিন রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের বেগম সিরাজুন্নেসা চৌধুরী হলের প্রাধ্যক্ষ জাফরিন আহমেদের বিরুদ্ধে অসদাচরণের অভিযোগ তুলে তাঁর পদত্যাগসহ তিন দফা দাবিতে আন্দোলন শুরু করেন হলের কয়েক শ ছাত্রী।