The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
সোমবার, ২৬শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪

রাবি শিক্ষক সমিতির নির্বাচন : আওয়ামীপন্থীদের নিরঙ্কুশ জয়

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় (রাবি) শিক্ষক সমিতির ২০২৩ সালের কার্যনির্বাহী সংসদ নির্বাচনে ১৫টি পদের সবগুলোতেই জয়ী হয়েছেন মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী প্রগতিশীল শিক্ষক সমাজের (আওয়ামী লীগ ও বামপন্থী) হলুদ প্যানেল।

সোমবার (১২ ডিসেম্বর) রাত ৮টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের জুবেরী ভবনে শিক্ষক সমিতির নির্বাচন শেষে ফলাফল ঘোষণা করেন নির্বাচন কমিশনার ও বর্তমান কমিটির কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক মো. কামরুজ্জামান।

নির্বাচনে ১ হাজার ৬৮ জন ভোটারের মধ্যে ভোট দিয়েছেন ৯৩৬ জন শিক্ষক।

সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন বাংলা বিভাগের অধ্যাপক সফিকুন্নবী সামাদী। তিনি পেয়েছেন ৪৯৯ ভোট। এদিকে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী সাদা প্যানেলের (বিএনপি ও জামায়াতপন্থী) সমাজকর্ম বিভাগের অধ্যাপক মো. আশরাফুজ্জামান পেয়েছেন ৩৮৮ ভোট।

সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন মার্কেটিং বিভাগের অধ্যাপক মো. বোরাক আলী। তিনি পেয়েছেন ৫১৫ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী সাদা প্যানেল থেকে লোক প্রশাসন বিভাগের অধ্যাপক পারভেজ আজহারুল হক (প্রিন্স) পেয়েছেন ৩৭৭ ভোট।

এদিকে হলুদ প্যানেল থেকে ৫৪৪ ভোট পেয়ে সহসভাপতি পদে জয়লাভ করেছেন ফার্মেসি বিভাগের অধ্যাপক মীর ইমাম ইবনে ওয়াহেদ (রাসেল)। কোষাধ্যক্ষ পদে ৫৪৮ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন ফলিত রসায়ন ও রসায়ন প্রকৌশল বিভাগের অধ্যাপক সৈয়দ এম এ ছালাম। যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদে ৫৪৮ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক মো. সুলতান মাহমুদ (রানা)।

এছাড়াও ১০টি সদস্য পদে বিজয়ী প্রার্থীরা হলেন- ইনস্টিটিউট অব বাংলাদেশ স্টাডিজের অধ্যাপক জাকির হোসেন (৫১৫ ভোট), গ্রাফিক ডিজাইন, কারুশিল্প ও শিল্পকলার ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক সুভাষ চন্দ্র সুতার (৪৬০ ভোট), ভেটেরিনারি ও অ্যানিমেল সায়েন্সেস বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আবদুল্লা আল-মামুন ভূঁঞা (৫১৪ ভোট), চিত্রকলা, প্রাচ্যকলা ও ছাপচিত্র বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক মোছা. নাজনীন আকতার (৪৮৬ ভোট), ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সারওয়ার আলী মুন (৪৯৩ ভোট), ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক আবু নোমান মুহাম্মদ মাসউদুর রহমান (৪৯৩ ভোট), ফলিত রসায়ন ও রসায়ন প্রকৌশল বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক মোছা. সাবিনা ইয়াছমীন (৫২৮ ভোট), ম্যানেজমেন্ট স্টাডিজ বিভাগ সহযোগী অধ্যাপক অমিতাভ সাহা (৪৮৪ভোট), পপুলেশন সায়েন্স অ্যান্ড হিউম্যান রিসোর্স ডেভেলপমেন্ট বিভাগের অধ্যাপক মো. রাশেদ আলম (৫৩৫ ভোট), পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক এম রফিকুল আহসান (৫৫৩ ভোট)।

বিপুল ভোটে জয়ী হয়ে শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক সফিকুন্নবী সামাদী বলেন, এটা আমাদের বিজয় নয় এটা আওয়ামী লীগ ও সাধারণ শিক্ষকদের বিজয়। যারা আমাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেছেন তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা। শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের সমস্যা নিয়ে কাজ করবো।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. প্রচ্ছদ
  2. রাজনীতি
  3. রাবি শিক্ষক সমিতির নির্বাচন : আওয়ামীপন্থীদের নিরঙ্কুশ জয়

রাবি শিক্ষক সমিতির নির্বাচন : আওয়ামীপন্থীদের নিরঙ্কুশ জয়

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় (রাবি) শিক্ষক সমিতির ২০২৩ সালের কার্যনির্বাহী সংসদ নির্বাচনে ১৫টি পদের সবগুলোতেই জয়ী হয়েছেন মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী প্রগতিশীল শিক্ষক সমাজের (আওয়ামী লীগ ও বামপন্থী) হলুদ প্যানেল।

সোমবার (১২ ডিসেম্বর) রাত ৮টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের জুবেরী ভবনে শিক্ষক সমিতির নির্বাচন শেষে ফলাফল ঘোষণা করেন নির্বাচন কমিশনার ও বর্তমান কমিটির কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক মো. কামরুজ্জামান।

নির্বাচনে ১ হাজার ৬৮ জন ভোটারের মধ্যে ভোট দিয়েছেন ৯৩৬ জন শিক্ষক।

সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন বাংলা বিভাগের অধ্যাপক সফিকুন্নবী সামাদী। তিনি পেয়েছেন ৪৯৯ ভোট। এদিকে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী সাদা প্যানেলের (বিএনপি ও জামায়াতপন্থী) সমাজকর্ম বিভাগের অধ্যাপক মো. আশরাফুজ্জামান পেয়েছেন ৩৮৮ ভোট।

সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছেন মার্কেটিং বিভাগের অধ্যাপক মো. বোরাক আলী। তিনি পেয়েছেন ৫১৫ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী সাদা প্যানেল থেকে লোক প্রশাসন বিভাগের অধ্যাপক পারভেজ আজহারুল হক (প্রিন্স) পেয়েছেন ৩৭৭ ভোট।

এদিকে হলুদ প্যানেল থেকে ৫৪৪ ভোট পেয়ে সহসভাপতি পদে জয়লাভ করেছেন ফার্মেসি বিভাগের অধ্যাপক মীর ইমাম ইবনে ওয়াহেদ (রাসেল)। কোষাধ্যক্ষ পদে ৫৪৮ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন ফলিত রসায়ন ও রসায়ন প্রকৌশল বিভাগের অধ্যাপক সৈয়দ এম এ ছালাম। যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদে ৫৪৮ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক মো. সুলতান মাহমুদ (রানা)।

এছাড়াও ১০টি সদস্য পদে বিজয়ী প্রার্থীরা হলেন- ইনস্টিটিউট অব বাংলাদেশ স্টাডিজের অধ্যাপক জাকির হোসেন (৫১৫ ভোট), গ্রাফিক ডিজাইন, কারুশিল্প ও শিল্পকলার ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক সুভাষ চন্দ্র সুতার (৪৬০ ভোট), ভেটেরিনারি ও অ্যানিমেল সায়েন্সেস বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আবদুল্লা আল-মামুন ভূঁঞা (৫১৪ ভোট), চিত্রকলা, প্রাচ্যকলা ও ছাপচিত্র বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক মোছা. নাজনীন আকতার (৪৮৬ ভোট), ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সারওয়ার আলী মুন (৪৯৩ ভোট), ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের অধ্যাপক আবু নোমান মুহাম্মদ মাসউদুর রহমান (৪৯৩ ভোট), ফলিত রসায়ন ও রসায়ন প্রকৌশল বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক মোছা. সাবিনা ইয়াছমীন (৫২৮ ভোট), ম্যানেজমেন্ট স্টাডিজ বিভাগ সহযোগী অধ্যাপক অমিতাভ সাহা (৪৮৪ভোট), পপুলেশন সায়েন্স অ্যান্ড হিউম্যান রিসোর্স ডেভেলপমেন্ট বিভাগের অধ্যাপক মো. রাশেদ আলম (৫৩৫ ভোট), পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক এম রফিকুল আহসান (৫৫৩ ভোট)।

বিপুল ভোটে জয়ী হয়ে শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক সফিকুন্নবী সামাদী বলেন, এটা আমাদের বিজয় নয় এটা আওয়ামী লীগ ও সাধারণ শিক্ষকদের বিজয়। যারা আমাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করেছেন তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা। শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের সমস্যা নিয়ে কাজ করবো।

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন