The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
বৃহস্পতিবার, ২৩শে মে, ২০২৪

মদ বিক্রি করে আইএএস অফিসার হয়ে নজির স্থাপন!

প্রতিভা বিকশিত হতে অভাব অনটন বাঁধা হতে পারে না। বিকশিত প্রতিভার এমন খবর প্রাই সামনে আসে। দরিদ্রতা সত্ত্বেও জীবন সংগ্রামে হাল না ছেড়ে অনেকেই অনেক বড় বড় কাজ করেছেন, প্রতিষ্ঠা পেয়েছেন সমাজে। সমাজের চোখে আঙ্গুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছেন ইন্ডিয়ার ভিল উপজাতির এক দরিদ্র ঘরের সন্তান আই এ এস অফিসার হয়ে।

তার নাম রাজেন্দ্র বাবু। বহু বাঁধা পেরিয়ে তিনি সফল হয়েছেন তার লক্ষে। তার পরিবার বহু কষ্ট করে তাকে পড়াশুনো শিখিয়েছেন। তার পিতার নাম ভান্দু ভারুদ এবং মায়ের নাম হলো কমলা বাই।

রাজেন্দ্রের জন্মের আগেই তার পিতার মৃত্যু হয়। অতি কষ্টে তিনি মানুষ হন। স্থানীয় মুহুয়া ফুল সংগ্রহ করে তা থেকে দেশি মদ বানিয়ে বিক্রি করে সংসার চালাতেন তার মা এবং ঠাকুমা। প্রতিদিন ১০০ টাকা করে আয় করে কোনোরকমে ৫ জনের সংসার চলতো তাদের। মদ বানানো ও বিক্রির কাজে রাজেন্দ্রও সহযোগীতা করতেন।

ছোট থেকেই তিনি মেধাবী ছিলন। তিনি সিবিএসসি বোর্ডের স্কুলে পড়াশোনা করেন। পরে দশম শ্রেণীর সর্বোচ্চ নম্বর পেয়ে স্কলারশিপ পান। আর সেই টাকায় মুম্বাইয়ের জি এস মেডিকেল কলেজে ভর্তি হন তিনি। তারপর ইউপিএসসি পরীক্ষার জন্য প্রস্তুত হয়ে ২০১২ সালে তিনি ফারিদাবাদে আই এ এস(IAS) অফিসার পদ অর্জন করেন। এবং ২০১৭ সালে চিফ এক্সিকিউটিভ অফিসার ও ২০১৮ সালে নন্দূর্বার জেলার ডিস্ট্রিক্ট ম্যাজিস্ট্রেট পদ অর্জন করেন তিনি।

সূত্র: বেঙ্গলি এক্সপ্রেস

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.