The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
শনিবার, ১৩ই জুলাই, ২০২৪

বিশ্বখ্যাত হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকতায় জাবি অধ্যাপক তারিকুল

জাবি প্রতিনিধি: যুক্তরাষ্ট্রের বিশ্বখ্যাত হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে গবেষণা ও শিক্ষকতার জন্য ডাক পেয়েছেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের (জাবি) সরকার ও রাজনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ তারিকুল ইসলাম।

তিঁনি হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েদারহেড স্কলারস প্রোগ্রাম (স্প্রিং, ২০২৪) এর আওতায় সেন্টার ফর ইন্টারন্যাশনাল অ্যাফেয়ার্স-এ ভিজিটিং স্কলার (পোস্ট-ডক্টোরাল ফেলো) হিসেবে যোগদান করবেন। ২০২৪ সালের জানুয়ারিতে তাঁর এই পাঠদান কার্যক্রম শুরু হবে।

হার্ভার্ডে মর্যাদাপূর্ণ ফেলোশিপ অর্জনে অনুভূতি ব্যক্ত করে ড. তারিকুল ইসলাম বলেন, আমার এই সাফল্যের জন্য প্রথমেই মহান আল্লাহ তায়ালার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে গবেষণা ও পাঠদানে যুক্ত হবার স্বপ্ন ছিল। স্বপ্ন পূরণের পথে যারা সর্বদা অনুপ্রেরণা যুগিয়েছেন তাদের প্রতিও কৃতজ্ঞতা। আমি বিশ্বাস রাখি, হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে পাঠদান এবং গবেষণার অভিজ্ঞতা আমার দক্ষতা এবং সক্ষমতা আরও বৃদ্ধি করবে। হার্ভার্ড থেকে অর্জিত অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে শিক্ষা ও গবেষণায় জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়কে বিশ্ব দরবারে সুপরিচিত করতে চাই।

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালে ড. তারিকুল ইসলাম জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সরকার ও রাজনীতি বিভাগে প্রভাষক হিসেবে যোগদান করেন। বিশ্ববিদ্যালয়ে যোগদানের পূর্বে ড. তারিকুল সাত বছরেরও বেশি সময় জাতিসংঘ উন্নয়ন কর্মসূচি (ইউএনডিপি)-তে কর্মরত ছিলেন। শিক্ষা ও গবেষণার অংশ হিসেবে তিনি বাংলাদেশ লোক প্রশাসন প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে রিসোর্স পারসন হিসেবে যুক্ত রয়েছেন।

ড. তারিকুল ইসলাম জাতীয় ও আন্তর্জাতিক বিভিন্ন পত্রিকা এবং জার্নালে নিয়মিত তাঁর গবেষণা ও সাম্প্রতিক বিষয়সমূহ নিয়ে লেখালেখি করে যাচ্ছেন। তার সম্পাদিত বই, ‌‘হিউম্যান সিকিউরিটি, পিস অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট: সাউথ এশিয়ান পারস্পেক্টিভ’, যা ভারত থেকে প্রকাশিত হয়েছে। এছাড়াও তাঁর দুটি উল্লেখযোগ্য গ্রন্থ ‘দুর্যোগ, সুশাসন এবং উন্নয়ন: বাংলাদেশ প্রেক্ষিত’ স্প্রিঞ্জার থেকে এবং ‘বাংলাদেশে স্থানীয় সরকার: সমসাময়িক সমস্যা এবং চ্যালেঞ্জ’ রাউটলেজ থেকে প্রকাশিত হয়েছে। ড. ইসলাম অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়, কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয় এবং স্কুল অফ ওরিয়েন্টাল অ্যান্ড আফ্রিকান স্টাডিজ (SOAS) থেকে একাধিক মর্যাদাপূর্ণ ফেলোশিপ (পোস্ট ডক্টোরাল ফেলো, ভিজিটিং স্কলার এবং ভিজিটিং রিসার্চার) ইতোমধ্যে সফলভাবে সম্পন্ন করেছেন। তিঁনি লন্ডন স্কুল অব ইকোনমিকস এন্ড পলিটিকাল সায়েন্স (এলএসই) এর সাউথ এশিয়া ব্লগে নিয়মিত লেখালেখি করেছেন। এছাড়াও তিঁনি চীন, ভারত, ইন্দোনেশিয়া ও নেপালের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে লেকচার প্রদান এবং সেমিনার ও ওয়ার্কশপ করিয়েছেন।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.