বার কাউন্সিলের লিখিত পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবেন না ৪২ জন

আইনজীবী অন্তর্ভুক্তির লিখিত পরীক্ষা আগামী শনিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) অনুষ্ঠিত হবে। এই পরীক্ষায় ৪২ জন অংশ নিতে পারবেন না। বাংলাদেশ বার কাউন্সিল থেকে জারি করা এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা গেছে, এবার বার কাউন্সিলে ১৪ হাজার ১৬০ জন শিক্ষার্থী রাজধানীর ১৩টি কেন্দ্রে লিখিত পরীক্ষায় অংশ নেবেন। তবে ২০২০ সালে অনুষ্ঠিত পরীক্ষায় সংগঠিত বিশৃঙ্খলা, অরাজকতা ও ভাঙচুরের ঘটনায় অভিযুক্ত ৪২ জন পরীক্ষা দিতে দেওয়া হবে না। অভিযুক্তদের এ পরীক্ষায় অংশগ্রহণ নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ২০২০ সালের ১৯ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত এনরোলমেন্ট লিখিত পরীক্ষার ৫টি কেন্দ্রে সংগঠিত বিশৃঙ্খলা, অরাজকতা ও কেন্দ্র ভাঙচুরের ঘটনায় অভিযুক্তদের কারণ দর্শানোর নোটিশ পাঠানো হয়েছিল। এরপর অভিযুক্তরা নোটিশের জবাব জমা দেয়। এরপর তাদের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ বার কাউন্সিলের এনরোলমেন্ট কমিটির সভায় পর্যালোচনা করা হয়।

তবে, অভিযুক্তদের জবাব সন্তোষজনক বিবেচিত না হওয়ায় এনরোলমেন্ট কমিটি তাদের প্রত্যেককে বার কাউন্সিলের পরবর্তী একটি এনরোলমেন্ট পরীক্ষায় (এমসিকিউ, লিখিত ও মৌখিক) অংশগ্রহণ নিষিদ্ধ করেছে।

প্রসঙ্গত, ২০২০ সালের ১৯ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত আইনজীবী অন্তর্ভুক্তির লিখিত পরীক্ষায় ৯টি কেন্দ্রের মধ্যে বিশৃঙ্খলা হওয়া ৫টি কেন্দ্রের পরীক্ষা বাতিল করা হয়। পরে ওই পাঁচ কেন্দ্রের পরীক্ষা পুনরায় নেওয়া হয়। পাশাপাশি এছাড়া ঘটনায় উস্কানিদাতা শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়। সেইসঙ্গে তাদের বিরুদ্ধে বার কাউন্সিলের এনরোলমেন্ট কমিটি শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিয়েছে।