The Rising Campus
News Media

নারীর তুলনায় পুরুষের কিডনিতে কেন পাথর জমে বেশি?

কিডনিতে পাথর হওয়ার সমস্যায় লিঙ্গভেদে অনেকেই ভোগেন। এই রোগের পেছনে নানা কারণ দায়ী হতে পারে। যার মধ্যে অন্যতম হলো- পানি কম খাওয়া, খাদ্যাভ্যাসের সমস্যা, জীবনযাত্রায় অনিয়ম ইত্যাদি।

বিশ্বব্যাপী ১১ শতাংশ পুরুষ ও ৬ শতাংশ নারীই এ সমস্যায় ভোগেন। তবে জানলে অবাক হবেন, পরিসংখ্যান অনুযায়ী নারীর তুলনায় পুরুষদের এ সমস্যায় আক্রান্ত হওয়ার সংখ্যা বেশি। তবে কী কারণে পুরুষদের কিডনিতে বেশি পাথর জমে?

কিডনিতে পাথর জমে কেন?

মূলত ক্যালসিয়াম জমে কিডনিতে পাথর তৈরি হয়। ক্যালসিয়াম অক্সালেট আছে এমন খাবার বেশি খেলে কিডনিতে পাথর জমার ঝুঁকি বাড়ে।

যেমন- খেজুর, বেরি, কামরাঙার মতো ফল, পালং শাক, বিটসহ গাজরেও প্রচুর ক্যালসিয়াম অক্সালেট থাকে। তাই এ খাবারগুলো বেশি পরিমাণে খাওয়া উচিত নয়।

এছাড়া পানি কম খেলেও কিডনিতে পাথর জমে। পানি কিডনি থেকে ক্যালসিয়াম অক্সালেট বের করে দেয়। পর্যাপ্ত পানি না খেলে এই সমস্যা আরও বাড়তে পারে।

এমনকি মদ্যপান, অতিরিক্ত লবণ ও মসলা দেওয়া খাবার দীর্ঘদিন ধরে খেলেও কিডনিতে পাথর জমার ঝুঁকি বাড়ে।

নারীর তুলনায় পুরুষদের কিডনিতে পাথর জমে কেন?

গবেষকদের মতে, এর প্রধান কারণ হলো পানি কম খাওয়া। পরিসংখ্যান বলছে, পুরুষরা নারীর তুলনায় কম পানি পান করেন। এ কারণে পুরুষরা বেশি পানিশূন্যতায় ভোগেন।

আর এ কারণেই তাদের কিডনিতে পাথর জমার ঝুঁকি বাড়ে। বিশেষ করে যারা দীর্ঘক্ষণ রোদে কাজ করেন ও পর্যাপ্ত পানি পান না করেন তাহলে পানিশূন্যতার কারণে হঠাৎ কিডনি বিকল পর্যন্ত হতে পারে।

বিজ্ঞানীরা আরও বলছেন, মদ্যপান ও জীবনযাত্রায় অনিয়মের ক্ষেত্রে পুরুষরা নারীর তুলনায় এগিয়ে আছেন। এ কারণেই তাদের কিডনিতে পাথর জমার ঝুঁকি বেশি।

সূত্র: অর্ল্যান্ডো হেলথ

পরীর স্ট্যাটাস ঘিরে শোরগোল, যা বলছেন রাজ-পরী-রাফি

0
You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.