The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
শনিবার, ১৩ই এপ্রিল, ২০২৪

তীব্র গরমে লুঙ্গি পরে অফিস করার অনুমতি চেয়ে আবেদন!

দেশে মাঝারি তাপপ্রবাহের সাথে পাল্লা দিয়ে লোডশেডিংয়ের মাত্রাও বৃদ্ধি পেয়েছে পূর্বের তুলনায়। গরমে জনজীবন অতিষ্ট। গত কয়েদদিনে যার মাত্রা আরও বৃদ্ধি পেয়ে গরমে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছেন মানুষ। সাধারণ মানুষ গরমের হাত থেকে বাচতে বিভিন্ন পন্থা অবম্বন করছেন। খুজছেন প্রশান্তি। তাররই ধারাবাহিকতায় এবার এক ব্যতিক্রম ঘটনা ঘটেছে। গরম থেকে বাঁচতে একজন কর্মী অফিসে লুঙ্গি পরে অফিস করার অনুমতি চেয়ে আবেদন করেছেন।

গত বৃহস্পতিবার (৮ জুন) নীলফামারীর সৈয়দপুরে একটি বিমা কোম্পানির কর্মী লঙ্গি পরে অফিস করার আবেদনটি করেছেন। লুঙ্গি পরে অফিস করার আবেদনের বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদটি প্রকাশ করা হয়েছে।

বিমা কোম্পানির ওই কর্মীর নাম নওশাদ আনছারী। তিনি বিমা কোম্পানি সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স কোম্পানির সৈয়দপুর শাখায় কম্পিউটার অপারেটর পদে কাজ করেন।

আবেদনপত্রে নওশাদ আনছারী লিখেছেন, সারাদেশে বইছে তীব্র দাবদাহ। সৈয়দপুরে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা অনুভূত হচ্ছে। বৃষ্টিহীন অসহ্য  গরম ও ঘন ঘন লোডশেডিংয়ে একটানা প্যান্ট পরে কাজ করা দুরূহ হয়ে পড়েছে। এতে শরীরের নানা স্থানে চুলকানিও শুরু হয়েছে। গরমের হাত থেকে বাচতে তাই লুঙ্গি পরে অফিস করার অনুমতি চান তিনি। বিদ্যুৎ না থাকায় কম্পিউটারে কম্পোজ করতে পারেননি। তাই হাতে লিখে আবেদনটি করেছেন বলে বিশেষ দ্রষ্টব্যে উল্লেখ করেছেন কম্পিউটার অপারেটর নওশাদ আনছারী।

এখনও চিঠির উত্তর পাননি জানিয়ে তিনি উল্লেখ করেন, অনেকেই বিষয়টি হাসি-ঠাট্টা হিসেবে নিলেও লুঙ্গি পরে অফিস করার  আবেদনটি মন থেকেই তিনি করেছেন এবং এটাই বাস্তবতা। আর সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স কোম্পানির সৈয়দপুর শাখার পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, লুঙ্গি পরে অফিস করার বিষয়ে একটি আবেদন তারা পেয়েছে। তবে এ বিষয়ে এখনও কোনো আলোচনা হয়নি।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. প্রচ্ছদ
  2. জাতীয়
  3. তীব্র গরমে লুঙ্গি পরে অফিস করার অনুমতি চেয়ে আবেদন!

তীব্র গরমে লুঙ্গি পরে অফিস করার অনুমতি চেয়ে আবেদন!

দেশে মাঝারি তাপপ্রবাহের সাথে পাল্লা দিয়ে লোডশেডিংয়ের মাত্রাও বৃদ্ধি পেয়েছে পূর্বের তুলনায়। গরমে জনজীবন অতিষ্ট। গত কয়েদদিনে যার মাত্রা আরও বৃদ্ধি পেয়ে গরমে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছেন মানুষ। সাধারণ মানুষ গরমের হাত থেকে বাচতে বিভিন্ন পন্থা অবম্বন করছেন। খুজছেন প্রশান্তি। তাররই ধারাবাহিকতায় এবার এক ব্যতিক্রম ঘটনা ঘটেছে। গরম থেকে বাঁচতে একজন কর্মী অফিসে লুঙ্গি পরে অফিস করার অনুমতি চেয়ে আবেদন করেছেন।

গত বৃহস্পতিবার (৮ জুন) নীলফামারীর সৈয়দপুরে একটি বিমা কোম্পানির কর্মী লঙ্গি পরে অফিস করার আবেদনটি করেছেন। লুঙ্গি পরে অফিস করার আবেদনের বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদটি প্রকাশ করা হয়েছে।

বিমা কোম্পানির ওই কর্মীর নাম নওশাদ আনছারী। তিনি বিমা কোম্পানি সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স কোম্পানির সৈয়দপুর শাখায় কম্পিউটার অপারেটর পদে কাজ করেন।

আবেদনপত্রে নওশাদ আনছারী লিখেছেন, সারাদেশে বইছে তীব্র দাবদাহ। সৈয়দপুরে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা অনুভূত হচ্ছে। বৃষ্টিহীন অসহ্য  গরম ও ঘন ঘন লোডশেডিংয়ে একটানা প্যান্ট পরে কাজ করা দুরূহ হয়ে পড়েছে। এতে শরীরের নানা স্থানে চুলকানিও শুরু হয়েছে। গরমের হাত থেকে বাচতে তাই লুঙ্গি পরে অফিস করার অনুমতি চান তিনি। বিদ্যুৎ না থাকায় কম্পিউটারে কম্পোজ করতে পারেননি। তাই হাতে লিখে আবেদনটি করেছেন বলে বিশেষ দ্রষ্টব্যে উল্লেখ করেছেন কম্পিউটার অপারেটর নওশাদ আনছারী।

এখনও চিঠির উত্তর পাননি জানিয়ে তিনি উল্লেখ করেন, অনেকেই বিষয়টি হাসি-ঠাট্টা হিসেবে নিলেও লুঙ্গি পরে অফিস করার  আবেদনটি মন থেকেই তিনি করেছেন এবং এটাই বাস্তবতা। আর সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স কোম্পানির সৈয়দপুর শাখার পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, লুঙ্গি পরে অফিস করার বিষয়ে একটি আবেদন তারা পেয়েছে। তবে এ বিষয়ে এখনও কোনো আলোচনা হয়নি।

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন