জ্বালানি সংকট: শিল্প-কারখানায় সাপ্তাহিক ছুটি ভিন্ন ভিন্ন দিনে

জ্বালানি সংকট মোকাবিলায় এলাকাভিত্তিক শিল্প-কারখানায় সাপ্তাহিক ছুটি ভিন্ন ভিন্ন দিনে থাকবে। বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) বিকেলে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের মহাপরিদর্শক (অতিরিক্ত সচিব) মো. নাসির উদ্দিন আহমেদ সই করা এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি হয়।

এতে বলা হয়, দেশের শিল্পাঞ্চলগুলোতে বিদ্যুৎ সরবরাহ নির্বিঘ্ন করার লক্ষ্যে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের ২০২২ সালের ১১ আগস্টের এক পত্রের মর্মানুযায়ী, পুনরাদেশ না দেয়া পর্যন্ত বাংলাদেশ শ্রম আইন, ২০০৬ এর ১১৪ (২) ধারার ক্ষমতাবলে এলাকাভেদে এ সাপ্তাহিক বন্ধের দিন ধার্য করা হলো।

সরকারের এ পরিকল্পনার সঙ্গে একমত প্রকাশ করেছেন ব্যবসায়ীরা। ফলে এখন থেকে দেশের একেক এলাকার শিল্পাঞ্চলগুলোতে একেক দিন সাপ্তাহিক ছুটি থাকবে।

সাধারণত, দেশের সব এলাকার শিল্প কারখানায় সাপ্তাহিক ছুটি থাকে শুক্রবার। তবে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ মন্ত্রণালয় বলছে, একেক এলাকায় একেক দিন ছুটি থাকলে বিদ্যুতের ঘাটতি কিছুটা কমবে। এতে ৫০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সাশ্রয় হতে পারে।

উল্লেখ্য, আগামী অক্টোবর থেকে দেশে শীত শুরু হবে। আর ডিসেম্বর-জানুয়ারি থেকে নতুন বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে যোগ হতে পারে। ফলে বিদ্যুতের এ সংকট হ্রাস পেতে পারে।