The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
বৃহস্পতিবার, ১৩ই জুন, ২০২৪

জাবিতে ঢালাইয়ের সময় নির্মাণাধীন মসজিদের ছাদ ধস

জাবি প্রতিনিধিঃ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ সালাম-বরকত ও আ. ফ. ম. কামালউদ্দিন হল সংলগ্ন নির্মাণাধীন মসজিদের ছাদ ঢালাইয়ের সময় ধসে পড়েছে। শনিবার (১৯ আগস্ট) সকালে ঢালাইয়ের কাজ শুরুর কিছুক্ষণ পরেই এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, ঢালায়ের কাজ চলার সময় কংক্রিট মিক্সার ঢালার পর ভাইব্রেট করতে গেলে ছাদের পশ্চিম ও দক্ষিণ পাশের সাটারিং ধসে পড়ে যায়। এর প্রেক্ষিতে শ্রমিকরা কাজ সাময়িক সময়ের জন্য বন্ধ। পরে খবর শুনে ঘটনাস্থলে এসে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক মো. নূরুল আলম এবং ওই দুই হলের প্রাধ্যক্ষসহ সংশ্লিষ্টরা কাজ বন্ধ রাখার নির্দেশ দেন।

নির্মাণশ্রমিক মো. জামাল বলেন, কংক্রিট ঢালার পর ভাইব্রেট করতে গেলে এ ঘটনা ঘটে। বৃষ্টির কারণে সাটারিংয়ের কাজ ড্যামেজ হয়ে গেছে। এজন্য এটি কংক্রিটের ভার নিতে পারেনি।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত ইঞ্জিনিয়ার ও মসজিদ তদারক কমিটির সদস্যদের উপস্থিতিতে তাৎক্ষণিক মিটিংয়ে সম্পূর্ণ ছাদের সাটারিং খুলে আবার নতুন করে লাগানোর সিদ্ধান্ত হয় বলে জানান মসজিদটি নির্মাণে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ফরমিলা আক্তার লিমিটেডের ম্যানেজিং ডিরেক্টর দাইয়ান বিন শাহজাহান।

তিনি বলেন, ‘সকাল ১০টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যসহ দুই হলের প্রাধ্যক্ষ এবং সংশ্লিষ্ট কয়েকজনের সাথে আমাদের মিটিং হয়। মিটিংয়ের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, পুরো ছাদের শাটারিং খুলে নতুন করে লাগাতে হবে এবং পরে কাজ শুরুর করার কথা বলা হয়।’

ছাদ ধসে পরার কারণ জানতে চাইলে দাইয়ান বলেন, ‘সাটারিং করার পর টানা ১০ দিন বৃষ্টি হয়েছে। এর কারণে পানি জমে কাঠ ভিজে ছিল আর পেরেকের সাথে কাঠের জোড়া লাগানো অংশ ফাঁকা হয়ে থাকতে পারে বলে আমরা ধারণা করছি। আর এ কারণেই এই ধসে পড়ার ঘটনা ঘটেছে।’

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে আ.ফ.ম. কামালউদ্দিন হলের প্রাধ্যক্ষ আ স ম ফিরোজ উল হাসান বলেন, উপাচার্য স্যারসহ আমরা কয়েকজন আজ সকালে ধসে পরা ছাদ পরিদর্শন করেছি। তাদেরকে আবার নতুন করে কাজ শুরু করতে বলা হয়েছে।’

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.