জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে শুরু হয়েছে গুচ্ছ কমিটির সভা

গুচ্ছভুক্ত ২২টি সাধারণ এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের ভর্তির প্রক্রিয়া নিয়ে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে টেকনিক্যাল কমিটির সভা শুরু হয়েছে। পূর্ব নির্ধারিত সময় অনুযায়ী মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়টর উপাচার্য অধ্যাপক ড. ইমদাদুল হকের সভাপতিত্বে এ সভা শুরু হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে এসব তথা জানা গেছে।

জানা যায়, সভায় সব বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য না থাকলেও গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত টেকনিক্যাল কমিটির আহ্বায়ক এবং চাঁদপুর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. নাছিম আখতার, যুগ্ম আহ্বায়ক ও শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদসহ আরও একাধিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য উপস্থিতি রয়েছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছিুক গুচ্ছ সংশ্লিষ্ট এক কর্মকর্তা জানান, গুচ্ছ কমিটি ভর্তি কার্যক্রমকে গতিশীল করতে কাজ করছেন। আজকের সভাটি গুচ্ছের টেকনিক্যাল কমিটির সমন্বয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে ভর্তি কার্যক্রমের টেকনিক্যাল ব্যাপারগুলোকে এগিয়ে নিতে কমিটির সদস্যরা তাদের মতামত তুলে ধরবেন। এছাড়া ভর্তি সংশ্লিষ্ট বিষয়গুলো নিয়েও আলোচনা হবে। পরবর্তীতে সার্বিক বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

এর আগে, গত ৩০ জুলাই দেশের ১৯ কেন্দ্রের ৫৭টি ভেন্যুতে একযোগে গুচ্ছের ‘ক’ ইউনিটের, ১৩ আগস্ট মানবিক অনুষদভুক্ত ‘বি’ ইউনিটের এবং ২০ আগস্ট বাণিজ্য অনুষদভুক্ত ‘সি’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। গুচ্ছের এবারের ভর্তি পরীক্ষায় ‘ক’ ইউনিটে ৮৫ হাজার ৫৮২ জন, ‘বি’ ইউনিটে ৪৮ হাজার ১০৬ জন এবং ‘সি’ ইউনিটে ২৩ হাজার ২২৮ জন ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী পাস করেছেন।

এক আবেদনেই ভর্তি গুচ্ছের ২২ বিশ্ববিদ্যালয়ে

গুচ্ছভুক্ত ২২ বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষে একটি আবেদনের মাধ্যমে সবগুলো বিশ্ববিদ্যালয় পছন্দক্রম দেওয়ার সুযোগ পেতে যাচ্ছেন শিক্ষার্থীরা। এক্ষেত্রে নিজ ইউনিটের জন্য কেবলমাত্র ৫০০ টাকা আবেদন ফি দিতে হবে।

কমিটি সূত্রে জানা গেছে, এবার কেন্দ্রীয়ভাবে শিক্ষার্থীদের ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এক্ষেত্রে শিক্ষার্থীরা একবারই আবেদন করবে। আবেদনের সময় বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর পছন্দক্রম ঠিক করে দিতে হবে। পরবর্তীতে প্রাপ্ত নম্বর অনুযায়ী সাবজেক্ট এবং বিশ্ববিদ্যালয় নির্ধারণ করা হবে। এই প্রক্রিয়া সফটওয়্যারের মাধ্যমে করা হতে পারে।

গুচ্ছের ভর্তি নিশ্চয়ন ফি ৫ হাজার টাকা

গুচ্ছের আসন ব্যবস্থা সুন্দর ও সাংগঠনিক প্রক্রিয়ায় নিয়ে আসার জন্য বেশ কিছু উদ্যোগ গ্রহণ করেছে এবারের কমিটি। শিক্ষার্থীদের ভোগান্তি লাঘবে এসব সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে। গুচ্ছের যেকোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে বিষয় প্রাপ্তির পর শিক্ষার্থীদের নির্দিষ্ট পরিমাণের অর্থের বিনিময়ে তা নিশ্চায়ন করতে হবে। এজন্য শিক্ষার্থীদের নিশ্চায়ন ফি বাবদ পাঁচ হাজার টাকা জমা দিতে হবে। এর সঙ্গে ভর্তিতে প্রয়োজনীয় যাবতীয় কাগজপত্রও জমা দিতে হবে।