The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
সোমবার, ৪ঠা মার্চ, ২০২৪

খুন্তি হাতে মেসি! মেক্সিকো ম্যাচ জিতেই গোটা দলকে মাংস রান্না করে খাওয়ালেন লিয়ো

সৌদি আরবের কাছে প্রথম ম্যাচে হারের পর চাপে ছিলেন  মেসি। দ্বিতীয় ম্যাচে মেক্সিকোর বিরুদ্ধে জয় আর্জেন্টিনা শিবিরের মেজাজ অনেকটাই ফুরফুরে করেছে। মেসিও তার ব্যতিক্রম নন। মেক্সিকো ম্যাচের পর তাঁকে দেখা গেল অন্য ভূমিকায়।

আর্জেন্টিনা অধিনায়কের প্রথম প্রেম ফুটবল। দ্বিতীয় প্রেম স্ত্রী আন্তোনেল্লা। তৃতীয় একটি ভাল লাগাও রয়েছে মেসির। সেটা হল রান্না। মাঝেমধ্যে সময় পেলে স্ত্রী, সন্তান বা পরিবারের সদস্যদের জন্য রান্না করেন। বন্ধুদের সঙ্গে পার্টিতেও কয়েক বার রান্না করতে দেখা দিয়েছে তাঁকে। এ বার রান্না করলেন সতীর্থদের জন্য।

মেক্সিকো ম্যাচের পরের দিন সকালে দলকে বিশ্রাম দেন আর্জেন্টিনার কোচ লিয়োনেল স্কালোনি। অনুশীলন না থাকায় দলের সকলে কাতার বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে নিজের মতো সময় কাটাচ্ছিলেন। মেসি সেই সুযোগ কাজে লাগালেন অন্য ভাবে। সতীর্থদের জন্য তৈরি করলেন গরুর মাংসের বার্বিকিউ। আর্জেন্টিনার অধিনায়কের অন্যতম প্রিয় মাংসের এই পদ। তৈরিও করতে পারেন। আগেও তাঁকে কয়েক বার গরুর মাংসের বার্বিকিউ তৈরি করতে দেখা গিয়েছে। মেক্সিকোকে হারানোর উৎসবে বাড়তি রং দিতে বিশ্বকাপের মাঝেই রাঁধুনির ভূমিকায় দেখা গেল তাঁকে। ২৬ নভেম্বর মেক্সিকোকে হারানোর পর সাজঘরে ফিরে একপ্রস্ত উৎসব করেন আর্জেন্টিনার ফুটবলাররা। সাজঘরে তাঁদের নাচের ভিডিয়ো সমাজমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। তেমনই ছড়িয়ে পড়েছে কাতার বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে মেসির বার্বিকিউ তৈরির ছবি।

বিশ্বকাপের দ্বিতীয় রাউন্ডের টিকিট নিশ্চিত না হলেও মেসিরা আত্মবিশ্বাসী। বুধবার গ্রুপের শেষ ম্যাচে তাঁদের প্রতিপক্ষ পোল্যান্ড। লেয়নডস্কিদের বিরুদ্ধে জিততে পারলে সরাসরি দ্বিতীয় পর্বে চলে যাবে আর্জেন্টিনা। পয়েন্ট নষ্ট করলে নির্ভর করতে হবে সৌদি আরব-মেক্সিকো ম্যাচের ফলাফলের উপর। সেই অর্থে পুরোপুরি চাপমুক্ত নন আর্জেন্টিনার ফুটবলররা। সে জন্যই হয়তো গুরুত্বপূর্ণ পোল্যান্ড ম্যাচের আগে সতীর্থদের তরতাজা রাখতে বাড়তি দায়িত্ব নিজের কাঁধেই তুলে নিলেন আর্জেন্টিনার অধিনায়ক। উল্লেখ্য, কাতারে বিশ্বকাপ খেলতে প্রায় ৯০০ কেজি গরুর মাংস নিয়ে এসেছে আর্জেন্টিনা। [সূত্র: আনন্দবাজার]

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. প্রচ্ছদ
  2. খেলাধুলা
  3. খুন্তি হাতে মেসি! মেক্সিকো ম্যাচ জিতেই গোটা দলকে মাংস রান্না করে খাওয়ালেন লিয়ো

খুন্তি হাতে মেসি! মেক্সিকো ম্যাচ জিতেই গোটা দলকে মাংস রান্না করে খাওয়ালেন লিয়ো

সৌদি আরবের কাছে প্রথম ম্যাচে হারের পর চাপে ছিলেন  মেসি। দ্বিতীয় ম্যাচে মেক্সিকোর বিরুদ্ধে জয় আর্জেন্টিনা শিবিরের মেজাজ অনেকটাই ফুরফুরে করেছে। মেসিও তার ব্যতিক্রম নন। মেক্সিকো ম্যাচের পর তাঁকে দেখা গেল অন্য ভূমিকায়।

আর্জেন্টিনা অধিনায়কের প্রথম প্রেম ফুটবল। দ্বিতীয় প্রেম স্ত্রী আন্তোনেল্লা। তৃতীয় একটি ভাল লাগাও রয়েছে মেসির। সেটা হল রান্না। মাঝেমধ্যে সময় পেলে স্ত্রী, সন্তান বা পরিবারের সদস্যদের জন্য রান্না করেন। বন্ধুদের সঙ্গে পার্টিতেও কয়েক বার রান্না করতে দেখা দিয়েছে তাঁকে। এ বার রান্না করলেন সতীর্থদের জন্য।

মেক্সিকো ম্যাচের পরের দিন সকালে দলকে বিশ্রাম দেন আর্জেন্টিনার কোচ লিয়োনেল স্কালোনি। অনুশীলন না থাকায় দলের সকলে কাতার বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে নিজের মতো সময় কাটাচ্ছিলেন। মেসি সেই সুযোগ কাজে লাগালেন অন্য ভাবে। সতীর্থদের জন্য তৈরি করলেন গরুর মাংসের বার্বিকিউ। আর্জেন্টিনার অধিনায়কের অন্যতম প্রিয় মাংসের এই পদ। তৈরিও করতে পারেন। আগেও তাঁকে কয়েক বার গরুর মাংসের বার্বিকিউ তৈরি করতে দেখা গিয়েছে। মেক্সিকোকে হারানোর উৎসবে বাড়তি রং দিতে বিশ্বকাপের মাঝেই রাঁধুনির ভূমিকায় দেখা গেল তাঁকে। ২৬ নভেম্বর মেক্সিকোকে হারানোর পর সাজঘরে ফিরে একপ্রস্ত উৎসব করেন আর্জেন্টিনার ফুটবলাররা। সাজঘরে তাঁদের নাচের ভিডিয়ো সমাজমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। তেমনই ছড়িয়ে পড়েছে কাতার বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে মেসির বার্বিকিউ তৈরির ছবি।

বিশ্বকাপের দ্বিতীয় রাউন্ডের টিকিট নিশ্চিত না হলেও মেসিরা আত্মবিশ্বাসী। বুধবার গ্রুপের শেষ ম্যাচে তাঁদের প্রতিপক্ষ পোল্যান্ড। লেয়নডস্কিদের বিরুদ্ধে জিততে পারলে সরাসরি দ্বিতীয় পর্বে চলে যাবে আর্জেন্টিনা। পয়েন্ট নষ্ট করলে নির্ভর করতে হবে সৌদি আরব-মেক্সিকো ম্যাচের ফলাফলের উপর। সেই অর্থে পুরোপুরি চাপমুক্ত নন আর্জেন্টিনার ফুটবলররা। সে জন্যই হয়তো গুরুত্বপূর্ণ পোল্যান্ড ম্যাচের আগে সতীর্থদের তরতাজা রাখতে বাড়তি দায়িত্ব নিজের কাঁধেই তুলে নিলেন আর্জেন্টিনার অধিনায়ক। উল্লেখ্য, কাতারে বিশ্বকাপ খেলতে প্রায় ৯০০ কেজি গরুর মাংস নিয়ে এসেছে আর্জেন্টিনা। [সূত্র: আনন্দবাজার]

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন