এনটিআরসিএর মাধ্যমে ৪৭১ জনকে নিয়োগের সুপারিশ

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের আওতাধীন সেকেন্ডারি এডুকেশন সেক্টর ইনভেস্টমেন্ট প্রোগ্রাম (সেসিপ) প্রকল্পে পুলিশ ভেরিফিকেশন কার্যক্রম চলমান অবস্থায় ভিরোল ফরম দাখিল করা ৪৭১ জন প্রার্থীকে নিয়োগের জন্য সুপারিশ করা হয়েছে। নিয়োগ সুপারিশের বিষয়টি সুপারিশকৃত প্রার্থী ও সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে এসএমএস যোগে অবহিত করা হয়েছে।

সোমবার (২৫ এপ্রিল) রাতে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষের (এনটিআরসিএ) সদস্য (শিক্ষা ও শিক্ষামান) এ বি এম শওকত ইকবাল শাহীন স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, এনটিআরসিএ থেকে সেসিপ বিশেষ গণবিজ্ঞপ্তির আওতায় গত বছরের ০৫ আগস্ট এবং ২৮ নভেম্বর (৪৭১+১২০)= ৫৯১ জন প্রার্থীকে প্রাথমিকভাবে নির্বাচন করা হয়। প্রাথমিকভাবে নির্বাচিত প্রার্থীদের মধ্যে (৪০০+৭১)=৪৭১ জন প্রার্থী এনটিআরসিএ কার্যালয়ে পুলিশ ভেরিফিকেশনের জন্য ভিরোল ফরম দাখিল করেন।

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের পুলিশ ভেরিফিকেশন কার্যক্রম চলমান অবস্থায় ডিরোল ফরম দাখিল করা ৪৭১ জন প্রার্থীকে নিয়োগের জন্য সুপারিশ করা হয়েছে। নিয়োগ সুপারিশের বিষয়টি সুপারিশকৃত প্রার্থী ও সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে এসএমএস যোগে অবহিত করা হয়েছে।

এতে সংশ্লিষ্ট প্রার্থীকে এনটিআরসিএর ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে স্ব-স্ব ইউজার আইডি ও পাসওয়ার্ডের মাধ্যমে সুপারিশ পত্র ডাউনলোড করে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানে সুপারিশ পত্রে উল্লেখিত তারিখের মধ্যে যোগদান করার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, অবশিষ্ট প্রার্থীগণের মধ্যে ১২০ জন প্রার্থীকে ভিআর ফরম প্রেরণ না করায় সুপারিশ করা হয়নি। যে সকল প্রার্থীকে সুপারিশ করা হয়নি তাদের তালিকা এনটিআরসিএর ওয়েব সাইটের সেসিপ নিয়োগ সুপারিশ নামক সেবা বক্সে দেখা যাবে।

যে সকল প্রার্থী ভিআর ফরম প্রেরণ করেননি তাদেরকে আগামী ১২ মে তারিখের মধ্যে ভিআর ফরম এনটিআরসিএ অফিসে সরাসরি জমা দেয়ার জন্য অনুরোধ করা হলো। অন্যথায় তাদের প্রাথমিক নির্বাচন বাতিল হয়ে যাবে বলে বিজ্ঞপ্তিতে সতর্ক করা হয়েছে।