The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
সোমবার, ৪ঠা মার্চ, ২০২৪

ইবি শিক্ষককে মারধরের ঘটনায় মহাসড়ক অবরোধ

ইবি প্রতিনিধি: ব্যাংক কর্মকর্তা সোহেল মাহমুদ কর্তৃক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) আল হাদিস এন্ড ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষক প্রফেসর ড. মোস্তাফিজুর রহমানকে মারধরের ঘটনায় কুষ্টিয়া-খুলনা মহাসড়ক অবরোধ করে আন্দোলন করেছে বিভাগটিরর শিক্ষার্থীরা। বৃহস্পতিবার (৮ জুন) সকাল ৯ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটক সংলগ্ন মহাসড়ক অবরোধ করেন তারা। ফলে কুষ্টিয়া-খুলনা মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। পরে প্রক্টরিয়াল বডির আশ্বাসে অবরোধ তুলে নেন আন্দোলনকারীরা।

আন্দোলনে শিক্ষার্থীরা দাবি করেন, অভিযুক্ত সোহেলকে আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে গ্রেফতার ও ভুক্তভোগীর নিকট ক্ষমা চাইতে হবে। পাশাপাশি অগ্রণী ব্যাংক বিশ্ববিদ্যালয় শাখা এক দিনের জন্য বন্ধ রাখতে হবে।

দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রক্টর (সহকারী প্রক্টর) অধ্যাপক ড. শফিকুল ইসলাম বলেন, “আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্মানিত একজন শিক্ষক যে ব্যাংক কর্মকর্তার দ্বারা হামলার শিকার হয়েছে তার বিচারের দাবিতে শিক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটক অবরোধ করেছিল। একটি নিয়মতান্ত্রিক পদ্ধতিতে সমস্যার সমাধান করার আশ্বাস দিলে অবরোধ তুলে নেন শিক্ষার্থীরা।”

এদিকে এ ঘটনায় ভুক্তভোগী শিক্ষক ও তার পরিবার চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন বলে রেজিস্ট্রার, প্রক্টর ও শিক্ষক সমিতি বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন তিনি।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. প্রচ্ছদ
  2. ক্যাম্পাস
  3. ইবি শিক্ষককে মারধরের ঘটনায় মহাসড়ক অবরোধ

ইবি শিক্ষককে মারধরের ঘটনায় মহাসড়ক অবরোধ

ইবি প্রতিনিধি: ব্যাংক কর্মকর্তা সোহেল মাহমুদ কর্তৃক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) আল হাদিস এন্ড ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষক প্রফেসর ড. মোস্তাফিজুর রহমানকে মারধরের ঘটনায় কুষ্টিয়া-খুলনা মহাসড়ক অবরোধ করে আন্দোলন করেছে বিভাগটিরর শিক্ষার্থীরা। বৃহস্পতিবার (৮ জুন) সকাল ৯ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটক সংলগ্ন মহাসড়ক অবরোধ করেন তারা। ফলে কুষ্টিয়া-খুলনা মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। পরে প্রক্টরিয়াল বডির আশ্বাসে অবরোধ তুলে নেন আন্দোলনকারীরা।

আন্দোলনে শিক্ষার্থীরা দাবি করেন, অভিযুক্ত সোহেলকে আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে গ্রেফতার ও ভুক্তভোগীর নিকট ক্ষমা চাইতে হবে। পাশাপাশি অগ্রণী ব্যাংক বিশ্ববিদ্যালয় শাখা এক দিনের জন্য বন্ধ রাখতে হবে।

দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রক্টর (সহকারী প্রক্টর) অধ্যাপক ড. শফিকুল ইসলাম বলেন, "আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ের সম্মানিত একজন শিক্ষক যে ব্যাংক কর্মকর্তার দ্বারা হামলার শিকার হয়েছে তার বিচারের দাবিতে শিক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটক অবরোধ করেছিল। একটি নিয়মতান্ত্রিক পদ্ধতিতে সমস্যার সমাধান করার আশ্বাস দিলে অবরোধ তুলে নেন শিক্ষার্থীরা।"

এদিকে এ ঘটনায় ভুক্তভোগী শিক্ষক ও তার পরিবার চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন বলে রেজিস্ট্রার, প্রক্টর ও শিক্ষক সমিতি বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন তিনি।

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন