The Rising Campus
Education, Scholarship, Job, Campus and Youth
বৃহস্পতিবার, ১৮ই এপ্রিল, ২০২৪

ইবিতে পর্দা উঠলো আন্তঃবিভাগ ক্রিকেটে টুর্নামেন্টের

ইবি প্রতিনিধি : ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) আন্তঃবিভাগ ও আন্তঃহল ক্রিকেট টুর্নামেন্ট -২০২৪ শুরু হয়েছে। মঙ্গলবার (২৭ ফেব্রুয়ারী) সকাল সাড়ে নয়টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় ক্রিকেট মাঠে এই আয়োজনের সূচনা হয়।

খেলার শুভ উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. শেখ আবদুস সালাম। এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড মোঃ মাহবুবুর রহমান, শারীরিক শিক্ষা বিভাগের পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) শাহ্ আলম, অর্থনীতি বিভাগের প্রভাষক ড. মো: আরিফুল ইসলাম, আল-ফিকহ অ্যান্ড লিগ্যাল স্টাডিজ বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. আমজাদ হোসেন সহ প্রায় শতাধিক শিক্ষার্থী উপস্থিত ছিলেন।

এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো: মাহবুবুর রহমান বলেন, আজকের এই টুর্নামেন্টে কেও হারবে কেও জিতবে এইটাই স্বাভাবিক। তবে সবার মধ্যে যেনো আন্তরিকতা থাকে। কোনো ধরনের অপ্রীতিকর পরিস্থিতি যেনো তৈরি না হয়, কোনো ধরনের যেনো মারামারি না হয়। এধরণের পরিস্থিতি তৈরি হলে সেখানেই খেলা বন্ধ করে দেয়া হবে।

আমরা চাচ্ছি বিশ্ববিদ্যালয়ের খেলাধুলা চালু থাক। এতেকরে মননের পরিবর্তন হয়, মানসিকতার পরিবর্তন হয়, লেখা পড়ার জন্য সুন্দর মানসিকতা থাকে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো: শেখ আবদুস সালাম বলেন, এই আন্ত:বিভাগ ক্রিকেট টুর্নামেন্টে আমাদের ৩৬ টা ডিপার্টমেন্ট ই অংশগ্রহণ করছে। এখানে পার্টিসিপ্যান্ট এর পরিমাণ শতকরা ১০০ তে ১০০ ভাগ। এখানেই এই আয়োজনের সার্থকতা। আমাদের ছেলেমেয়েরা শতকরা একশো জনই খেলবে, একশো জনেই পড়বে, একশো জনই গাইবে, একশো জনই নাচবে, এইটাই বিশ্ববিদ্যালয়। আমাদের বিশ্ববিদ্যালয় স্পোর্টস এ অনেক পরিচিত পেয়েছে এখন পর্যন্ত। খেলাধুলায় প্রতিযোগিতা থাকবে। এই প্রতিযোগিতার মাধ্যমেই আমরা আনন্দ খুঁজে পাবো। এখানে কোনো মলিনতার যায়গা নেই, সংঘাতের জায়গা নেই।

তিনি আরো বলেন, স্পোর্টস শুধু শারিরীক ও মানসিকভাবে এগিয়ে রাখে তা না। আগামীতে স্পোর্টস আমাদের ইকোনোমিতে গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখবে। স্পোর্টস আমাদের শারীরিক, মানসিক, আত্নিক এবং শুদ্ধ চিন্তাধারার যায়গাকে আগলে রেখে সামনে এগিয়ে নিয়ে যাবে।

উল্লেখ্য, আজকের উদ্বোধনী খেলায় মুখোমুখি হয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের ইলেকট্রনিক্স অ্যান্ড ইলেক্ট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং এবং সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার বিভাগ।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. প্রচ্ছদ
  2. খেলাধুলা
  3. ইবিতে পর্দা উঠলো আন্তঃবিভাগ ক্রিকেটে টুর্নামেন্টের

ইবিতে পর্দা উঠলো আন্তঃবিভাগ ক্রিকেটে টুর্নামেন্টের

ইবি প্রতিনিধি : ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) আন্তঃবিভাগ ও আন্তঃহল ক্রিকেট টুর্নামেন্ট -২০২৪ শুরু হয়েছে। মঙ্গলবার (২৭ ফেব্রুয়ারী) সকাল সাড়ে নয়টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় ক্রিকেট মাঠে এই আয়োজনের সূচনা হয়।

খেলার শুভ উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. শেখ আবদুস সালাম। এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড মোঃ মাহবুবুর রহমান, শারীরিক শিক্ষা বিভাগের পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) শাহ্ আলম, অর্থনীতি বিভাগের প্রভাষক ড. মো: আরিফুল ইসলাম, আল-ফিকহ অ্যান্ড লিগ্যাল স্টাডিজ বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. আমজাদ হোসেন সহ প্রায় শতাধিক শিক্ষার্থী উপস্থিত ছিলেন।

এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো: মাহবুবুর রহমান বলেন, আজকের এই টুর্নামেন্টে কেও হারবে কেও জিতবে এইটাই স্বাভাবিক। তবে সবার মধ্যে যেনো আন্তরিকতা থাকে। কোনো ধরনের অপ্রীতিকর পরিস্থিতি যেনো তৈরি না হয়, কোনো ধরনের যেনো মারামারি না হয়। এধরণের পরিস্থিতি তৈরি হলে সেখানেই খেলা বন্ধ করে দেয়া হবে।

আমরা চাচ্ছি বিশ্ববিদ্যালয়ের খেলাধুলা চালু থাক। এতেকরে মননের পরিবর্তন হয়, মানসিকতার পরিবর্তন হয়, লেখা পড়ার জন্য সুন্দর মানসিকতা থাকে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো: শেখ আবদুস সালাম বলেন, এই আন্ত:বিভাগ ক্রিকেট টুর্নামেন্টে আমাদের ৩৬ টা ডিপার্টমেন্ট ই অংশগ্রহণ করছে। এখানে পার্টিসিপ্যান্ট এর পরিমাণ শতকরা ১০০ তে ১০০ ভাগ। এখানেই এই আয়োজনের সার্থকতা। আমাদের ছেলেমেয়েরা শতকরা একশো জনই খেলবে, একশো জনেই পড়বে, একশো জনই গাইবে, একশো জনই নাচবে, এইটাই বিশ্ববিদ্যালয়। আমাদের বিশ্ববিদ্যালয় স্পোর্টস এ অনেক পরিচিত পেয়েছে এখন পর্যন্ত। খেলাধুলায় প্রতিযোগিতা থাকবে। এই প্রতিযোগিতার মাধ্যমেই আমরা আনন্দ খুঁজে পাবো। এখানে কোনো মলিনতার যায়গা নেই, সংঘাতের জায়গা নেই।

তিনি আরো বলেন, স্পোর্টস শুধু শারিরীক ও মানসিকভাবে এগিয়ে রাখে তা না। আগামীতে স্পোর্টস আমাদের ইকোনোমিতে গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখবে। স্পোর্টস আমাদের শারীরিক, মানসিক, আত্নিক এবং শুদ্ধ চিন্তাধারার যায়গাকে আগলে রেখে সামনে এগিয়ে নিয়ে যাবে।

উল্লেখ্য, আজকের উদ্বোধনী খেলায় মুখোমুখি হয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের ইলেকট্রনিক্স অ্যান্ড ইলেক্ট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং এবং সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার বিভাগ।

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন