The Rising Campus
News Media
শুক্রবার, ২৭শে জানুয়ারি, ২০২৩

আফ্রিকান ও মুসলিম দেশ মরক্কোর জয়ে আমি গর্বিত: ওজিল

কাতার বিশ্বকাপে সকল নাটকীয়তা দেখা হয়ে গিয়েছে, এমনটা ভেবে রাখলে তাদের জন্য ছিল মরোক্কান রূপকথার আরেক অধ্যায়।

ফুটবল বিশ্বে এখন আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে আফ্রিকার দেশ মরক্কো। মরুর বুকে চমক দেখিয়ে প্রথমবারের মত বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে আটলাস সিংহরা।

মরক্কোর জয়ের পর মন্তব্য করেছেন তারকা ফুটবলার মেসুত ওজিল। তিনি জানান, আফ্রিকান ও মুসলিম দেশ মরক্কোর জয়ে গর্বিত। এই জয় মুসলিম বিশ্বের জন্যও আনন্দদায়ক বলে জানিয়েছেন এই ফুটবলার।

কাতার বিশ্বকাপে উদয় হয়েছে নতুন সূর্যের। সেই সূর্যটা প্রথমবারের মত দূতি ছড়াচ্ছে ফুটবলের বিশ্বমঞ্চে। প্রথম আফ্রিকান দল হিসেবে জায়গা করে নিয়েছে বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে। যেখানে তাদের প্রতিপক্ষ বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স।

তারকা ফুটবলার মেসূত ওজিলের কথা ধরে বলতে হয় হোয়াট এ টিম। কি দারুণ এচিভম্যান্ট আফ্রিকান ও মুসলিম দলটির।

জার্মানি তারকা ফুটবলার মেসুত ওজিল বলেন, আমি গর্বিত, কি দারুণ একটা দল। আফ্রিকান ও মুসলিম দেশ হিসেবে কি অসাধারণ অর্জন। এটা মুসলিম বিশ্বের জন্যও আনন্দদায়ক। এই জয় অনেক মানুষকে আশাবাদী করবে এবং স্বপ্ন দেখাবে।

স্পেন বধের পর পর্তুগাল বধ। উল্লাসে মাতলেও সেটিতে যেনো ছিলো পরিমাপের ছাপ। আসরের শুরু থেকেই দলটির পরিমিতি বোধ আর সাধাসিধা চলন জনপ্রিয়তার শীর্ষে কাতার বিশ্বকাপে।

প্রতিটি ম্যাচ জয়ের পর মাঠে সেজদায় লুটিয়ে পড়া দলটা এরই মধ্যে মুসলিম বিশ্বে আলাদা জায়গা করে নিয়েছে।কিন্তু এই দলের ফুটবলাররা উঠে এসেছে হত দরিদ্র পরিবার থেকে। জীবন সংগ্রামে নিজেদের বারবার প্রমাণ করে।

মরক্কোর জয়ে অভিনন্দন জানিয়েছেন বিশ্বের গণ্যমান্য অনেকে। এর মধ্যে আছেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান, কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল-থানি, বিশ্বখ্যাত গায়িকা শারিকা প্রমুখ।

শনিবার রাতে পর্তুগালকে ১-০ গোলে হারিয়ে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করে মরক্কো। এরপরই তুর্কি বংশোদ্ভূত ওজিল এ মন্তব্য করেন।

এমবাপেকে হাকিমির ‘হুমকি’

20
You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. হোম
  2. খেলাধুলা
  3. আফ্রিকান ও মুসলিম দেশ মরক্কোর জয়ে আমি গর্বিত: ওজিল

আফ্রিকান ও মুসলিম দেশ মরক্কোর জয়ে আমি গর্বিত: ওজিল

কাতার বিশ্বকাপে সকল নাটকীয়তা দেখা হয়ে গিয়েছে, এমনটা ভেবে রাখলে তাদের জন্য ছিল মরোক্কান রূপকথার আরেক অধ্যায়।

ফুটবল বিশ্বে এখন আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে আফ্রিকার দেশ মরক্কো। মরুর বুকে চমক দেখিয়ে প্রথমবারের মত বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে আটলাস সিংহরা।

মরক্কোর জয়ের পর মন্তব্য করেছেন তারকা ফুটবলার মেসুত ওজিল। তিনি জানান, আফ্রিকান ও মুসলিম দেশ মরক্কোর জয়ে গর্বিত। এই জয় মুসলিম বিশ্বের জন্যও আনন্দদায়ক বলে জানিয়েছেন এই ফুটবলার।

কাতার বিশ্বকাপে উদয় হয়েছে নতুন সূর্যের। সেই সূর্যটা প্রথমবারের মত দূতি ছড়াচ্ছে ফুটবলের বিশ্বমঞ্চে। প্রথম আফ্রিকান দল হিসেবে জায়গা করে নিয়েছে বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে। যেখানে তাদের প্রতিপক্ষ বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স।

তারকা ফুটবলার মেসূত ওজিলের কথা ধরে বলতে হয় হোয়াট এ টিম। কি দারুণ এচিভম্যান্ট আফ্রিকান ও মুসলিম দলটির।

জার্মানি তারকা ফুটবলার মেসুত ওজিল বলেন, আমি গর্বিত, কি দারুণ একটা দল। আফ্রিকান ও মুসলিম দেশ হিসেবে কি অসাধারণ অর্জন। এটা মুসলিম বিশ্বের জন্যও আনন্দদায়ক। এই জয় অনেক মানুষকে আশাবাদী করবে এবং স্বপ্ন দেখাবে।

স্পেন বধের পর পর্তুগাল বধ। উল্লাসে মাতলেও সেটিতে যেনো ছিলো পরিমাপের ছাপ। আসরের শুরু থেকেই দলটির পরিমিতি বোধ আর সাধাসিধা চলন জনপ্রিয়তার শীর্ষে কাতার বিশ্বকাপে।

প্রতিটি ম্যাচ জয়ের পর মাঠে সেজদায় লুটিয়ে পড়া দলটা এরই মধ্যে মুসলিম বিশ্বে আলাদা জায়গা করে নিয়েছে।কিন্তু এই দলের ফুটবলাররা উঠে এসেছে হত দরিদ্র পরিবার থেকে। জীবন সংগ্রামে নিজেদের বারবার প্রমাণ করে।

মরক্কোর জয়ে অভিনন্দন জানিয়েছেন বিশ্বের গণ্যমান্য অনেকে। এর মধ্যে আছেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান, কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল-থানি, বিশ্বখ্যাত গায়িকা শারিকা প্রমুখ।

শনিবার রাতে পর্তুগালকে ১-০ গোলে হারিয়ে সেমিফাইনাল নিশ্চিত করে মরক্কো। এরপরই তুর্কি বংশোদ্ভূত ওজিল এ মন্তব্য করেন।

এমবাপেকে হাকিমির ‘হুমকি’

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন