রেজিস্ট্রেশন করতে না পারা শিক্ষার্থীদের ধৈর্য ধরতে হবে: ইউজিসি

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের যেসকল আাবসিক শিক্ষার্থী সুরক্ষা অ্যাপের মাধ্যমে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে পারছে না তাদের ধৈর্য্য ধরতে বলেছেন বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) অতিরিক্ত পরিচালক মো. ফজলুর রহমান।

ইউজিসির নোটিশের পরেও গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের কোনো শিক্ষার্থী সুরক্ষা অ্যাপে রেজিস্ট্রেশন করতে না পারার বিষয়ে যোগাযোগ করা হলে আজ রবিবার এ কথা বলেন তিনি।

ফজলুর রহমান বলেন, “স্বাস্থ্য অধিদপ্তর শিক্ষার্থীদের তথ্য এন্ট্রি করার পরে সকল পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরাই টিকার জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে পারবে। এ বিষয়ে এখনও কাজ চলছে। শিক্ষার্থীদের একটু ধৈর্য্য ধরতে হবে”।

এর আগে, বশেমুরবিপ্রবির একাধিক শিক্ষার্থীর সাথে কথা বলে জানা গেছে ইতোপূর্বে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শিক্ষার্থীদের জাতীয় পরিচয়পত্রের নম্বরসহ প্রয়োজনীয় তথ্য চাওয়া হয়েছিলো। ওই সময়ে তারা সকল তথ্য প্রদান করেছিলেন। কিন্তু এরপরও সুরক্ষা অ্যাপে রেজিস্ট্রেশন করতে পারছেন না তারা।

এক্ষেত্রে অ্যাপে প্রয়োজনীয় তথ্য দেয়ার পর দেখানো হচ্ছে, “দুঃখিত, এই মুহুর্তে আপনি ভ্যাকসিনের জন্য নির্বাচিত নন।”

এ বিষয়ে ভ্যাকসিনের জন্য শিক্ষার্থীদের তালিকা প্রেরণের দায়িত্বে থাকা ডেপুটি রেজিস্ট্রার মো. মোরাদ হোসেন বলেন, “আমি অসুস্থ থাকায় ছুটিতে রয়েছি। তবে ১ জুলাই এর পূর্বেই আমরা আমাদের বিশ্ববিদ্যালয় থেকে দুই দফায় প্রায় ১৯০০ এবং ৩১০০ মোট ৫০০০ এর মত শিক্ষার্থীর তথ্য ইউজিসিতে প্রেরণ করেছি।”

প্রসঙ্গত, গত ১ জুলাই বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন থেকে সুরক্ষা অ্যাপের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের রেজিষ্ট্রেশন করার জন্য সকল পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রারদের চিঠি দেয়া হয়।