মেসেঞ্জার ও হোয়াটসঅ্যাপে একসঙ্গে চ্যাট

মানুষের জীবনে বাড়ছে প্রযুক্তির প্রভাব। রমরমা বাড়ছে সোশ্যাল মেসেজিং অ্যাপগুলোর। এর মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় অবশ্যই ফেসবুক, হোয়াটসঅ্যাপ এবং ইনস্টাগ্রাম। নিজেদের ইউজারদের জন্য মাঝেমধ্যেই একাধিক আকর্ষণীয় ফিচার নিয়ে আসে তারা। এবার ইউজারদের সুবিধার্থে আরও পদক্ষেপ নিচ্ছে ফেসবুক।

একই জায়গা থেকে ইউজাররা হোয়াটসঅ্যাপ, ফেসবুক, ইনস্টাগ্রাম ব্যবহার করতে পারবেন। ইতোমধ্যেই ইনস্টাগ্রামের ডেস্কটপ মেসেজিংয়ের সঙ্গে যুক্ত হয়েছে ফেসবুক মেসেঞ্জার অপশন। যেখানে খুব সহজেই দুই মেসেঞ্জারের যে কোনো একটি থেকেই অপরটির সঙ্গে সংযোগ স্থাপন সম্ভব। এবার সেই সংযোগ স্থাপনের উদ্দেশ্য নিয়েই, ফেসবুকের সঙ্গে যুক্ত হতে চলেছে হোয়াটসঅ্যাপ।

ইউজারদের একে অপরকে টেক্সট করতে যাতে আরও সুবিধা হয়, সে কারণেই ইনস্টাগ্রাম, হোয়াটসঅ্যাপ এবং ফেসবুক মেসেঞ্জারকে একসঙ্গে আনার কথা ভাবা হয়েছে।

ওয়াবেটাইনফো জানায়, একীভূত হওয়ার পর মেসেঞ্জারেই দেখা যাবে হোয়াটসঅ্যাপের মেসেজ। তবে এটি বাধ্যতামূলক করা হবে না। ব্যবহারকারীরা চাইলে দুটি সেবা একই প্ল্যাটফর্মে ব্যবহার করতে পারবেন।

এ পুরো একীভূতকরণ বিষয়টি নিয়ে কাজ করছে ইতালিয়ান বিখ্যাত কোডিং ব্যক্তিত্ব আলেসান্দ্রো পালুজ্জি। ফেসবুক মেসেঞ্জার এবং হোয়াটসঅ্যাপের মধ্যে যেহেতু সরাসরি সংযোগ স্থাপন সম্ভব নয়, তাই পালুজ্জি একটি অন্য রাস্তা নিয়েছেন। তিনি ফেসবুক মেসেঞ্জারের কোডের মধ্যে হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট রাখার একটি অপশন তৈরি করেছেন।

পালুজ্জি জানিয়েছেন, ফেসবুক মেসেঞ্জারের সঙ্গে জড়িত একাধিক নতুন বৈশিষ্ট্য ইতোমধ্যেই হোয়াটঅ্যাপের সঙ্গে সংযুক্তিকরণের জন্য চেষ্টা চালানো হচ্ছে। বিষয়টি যদিও এখনো বিভিন্ন রকম অপারেটিং সিস্টেমের পরীক্ষাধীন। তবে চেষ্টা চালিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

ফেসবুক ও হোয়াটসঅ্যাপের সংযুক্তিকরণের পদ্ধতিটা দ্রুততার সঙ্গেই চলছে। তবে কবে থেকে মেসেঞ্চারের কোডে হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট পাওয়া যেতে পারে, সে বিষয়ে এখনো কোনো চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি।