বিশেষ গণবিজ্ঞপ্তি কাল এনটিআরসিএতে স্মারকলিপি দেবে ট্রেড ইন্সট্রাক্টরে চাকরিপ্রত্যাশীরা

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের আওতাধীন সেকেন্ডারি এডুকেশন সেক্টর ইনভেস্টমেন্ট প্রোগ্রামের (সেসিপ) ৬৬৮টি পদের বিশেষ গণবিজ্ঞপ্তিতে আবেদনের সময় বাড়ানোর দাবি জানিয়েছেন ১৬তম শিক্ষক নিবন্ধনের ট্রেড ইন্সট্রাক্টর কোর্সের চাকরিপ্রত্যাশীরা। নিজেদের দাবির পক্ষে আগামীকাল বৃহস্পতিবার (১২ আগস্ট) এনটিআরসিএ চেয়ারম্যান বরাবর স্মারকলিপি দেবেন তারা।

বুধবার (১১ আগস্ট) এ তথ্য জানিয়েছেন ১৬তম ট্রেড ইন্সট্রাক্টর ফলাফল প্রত্যাশী কমিটির আহবায়ক মো. রাশেদ মোশাররফ।

তিনি বলেন, প্রায় তিন বছর হতে চললেও এখনো ১৬তম নিবন্ধনের ভাইভা শেষ করতে পারেনি এনটিআরসিএ। এছাড়া ১৬তম শিক্ষক নিবন্ধনের ট্রেড ইন্সট্রাক্টর কোর্সের ২৪০ জন প্রার্থীরা মৌখিক পরীক্ষা প্রায় ৮ মাস আগে শেষ হয়েছে। যে উদ্দেশ্যে সরকার সেসিপ প্রকল্পের মাধ্যমে এই নিয়োগ দিচ্ছে, সেটি পূরণ করতে হলে ১৬তদের এই গণবিজ্ঞপ্তিতে যুক্ত করতেই হবে। অথচ আমরা সেখানে আবেদনের সুযোগ থেকে বঞ্চিত হচ্ছি। সেজন্য আমরা স্মারকলিপির মাধ্যমে আমাদের দাবিগুলো এনটিআরসিএর কাছে তুলে ধরবো।

মো. রাশেদ মোশাররফ বলেন, আগামীকাল দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ১৬তম শিক্ষক নিবন্ধনের ট্রেড ইন্সট্রাক্টরে নিয়োগপ্রত্যাশীরা এনটিআরসিএর সামনে জড়ো হবেন। সেখানে চেয়ারম্যান বরাবর স্মারকলিপি দেয়া শেষে আমরা শিক্ষামন্ত্রী এবং শিক্ষা সচিব বরাবর স্মারকলিপি দেব। এছাড়া সেসিপ এবং স্পারসোতেও স্মারকলিপি দেয়া হবে।

তিনি আরও বলেন, করোনার কারণে দীর্ঘদিন ধরে সবকিছু বন্ধ রয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা করোনাকালীন সময়ে বিভিন্ন ক্ষেত্রে অনেক ছাড় দিয়েছেন। সেখানে আমরা কেবল আবেদনের সময় বাড়ানো দাবি জানাচ্ছি। আমাদের অনেকের বয়স ৩৫ হতে চলেছে। আবেদনের সময় না বাড়ালে অমরা অনেকেই আর চাকরি পাবো না। এনটিআরসিএ চেয়ারম্যানের কাছে আবেদনের সময় অন্তত ৪০ দিন বাড়ানোর জোর দাবি জানাচ্ছি।

প্রসঙ্গত, গত ৫ আগস্ট সেকেন্ডারি এডুকেশন সেক্টর ইনভেস্টমেন্ট প্রোগ্রামে নিয়োগের জন্য বিশেষ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ। আগামী ৩১ আগস্ট আবেদনের সময়সীমা শেষ হবে বলে বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।