পড়াশুনা করুন উচ্চশিক্ষার স্বর্গরাজ্যে ফিনল্যান্ডে

ইউরোপের সবচেয়ে উত্তরে অবস্থিত উন্নত দেশগুলোর মধ্যে একটি অন্যতম দেশ হচ্ছে ফিনল্যান্ড। ফিনল্যান্ডের রাজধানী হেলসিঙ্কি এবং এটি বৃহত্তম শহর। ফিনল্যান্ড পরিস্কার পরিচ্ছন্ন একটি দেশ। ফিনল্যান্ডের শিক্ষা ব্যবস্থা অন্যান্য দেশের তুলনার অধুনিক এবং অনেক এগিয়ে রয়েছে। শিক্ষা ফিনল্যান্ড এর একটি জন্মগত অধিকার এবং এটি রাষ্ট্রকর্তৃক প্রদত্ত সেবা হিসেবে বিবেচনা করা হয়ে থাকে । এখানে প্রাথমিক স্কুলে ৬ বছর এবং মাধ্যমিক স্কুলে ৩ বছর লেখাপড়া করা সবার জন্য বাধ্যতামূলক এবং বিনামূল্য তা প্রদান করা হয়।পাশাপাশি ফিনল্যান্ডের উচ্চশিক্ষা অনেক উন্নত এবং ফিনল্যান্ড বর্তমানে উচ্চশিক্ষা আকাঙ্ক্ষীদের জন্য স্বর্গে পরিণত হয়েছে যার একমাত্র কারণ উচ্চমানের শিক্ষাব্যবস্থা।

উচ্চশিক্ষার জন্য ফিনল্যান্ডে রয়েছে অসংখ্য বিশ্ববিদ্যালয়। রয়েছে কলেজ এবং শিক্ষক প্রশিক্ষণ স্কুল। তাছাড়া ফিনিশ ডিগ্রির মানও অনেক ভাল এবং এর গ্রহণযোগ্যতা রয়েছে বিশ্বজুড়ে। যার ফলে এদেশে প্রতি বছর এশিয়া ও আফ্রিকার বিভিন্ন দেশ থেকে প্রচুর শিক্ষার্থী উচ্চশিক্ষা ও প্রশিক্ষণ গ্রহণের উদ্দেশ্যে পাড়ি জমায়। ফিনল্যান্ডের শিক্ষা ব্যবস্থার একটি চমৎকার বিষয় হচ্ছে এখানে উচ্চশিক্ষার জন্য সাধারণত বিশ্ববিদ্যালয়গুলোকে টিউশন ফি দেয়া লাগে না এবং যে কোন বয়সেই ভর্তির জন্য আপনি আবেদন করতে পারবেন।অর্থাৎ উচ্চশিক্ষার ক্ষেত্রেও ফিনল্যান্ডে ব্যাচেলর বা মাস্টার্স প্রোগ্রামে ভর্তি হওয়ার ক্ষেত্রে বয়সের কোন বাধা নেই।

ফিনল্যান্ডের নিজস্ব শিক্ষা ব্যবস্থা অনুযারী তাদের রাষ্ট্রভাষা মাধ্যমে শিক্ষণ কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়। ফিনল্যান্ডের রাষ্ট্রভাষা হল দুটি- (১) ফিনিশ ভাষা (২) সুইডিশ ভাষা। বেশির ভাগ বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে ফিনল্যান্ডের শিক্ষা ব্যবস্থা অনুযায়ী ফিনিশ ভাষায় শিক্ষণ কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়। ফলে বিশেষ করে আপনি যদি স্নাতক স্তরে পড়াশোনার জন্য ফিনল্যান্ডে যেতে চান। তাহলে আপনাকে ফিনিশ বা সুইডিশ ভাষার উপর ভালো দক্ষতা থাকতে হবে। এর পাশাপাশি একজন আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থী হিসেবে অবশ্যই প্রাথমিক ভাষা দক্ষতা হিসেবে ইংরেজি জানতে হবে। অন্যথায় আপনি সমস্যায় পড়বেন।

ফিনল্যান্ডে উচ্চশিক্ষা গ্রহণের জন্য রয়েছে ২৭ টি ফলিত বিজ্ঞান (Applied Sciences) এর বিশ্ববিদ্যালয় এবং ১৬টি সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয়। ফলিত বিজ্ঞানের বিশ্ববিদ্যালয়গুলো মূলত পলিটেকনিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়। ফিনল্যান্ডে সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে হেলসিংকি বিশ্ববিদ্যালয় সবচেয়ে বড় এবং উন্নত। ১৬৪০ সালে বিশ্ববিদ্যালয়টি স্থাপিত হয়। ১৮২৮ সালে হেলসিংকিতে, দেশের রাজধানী স্থানান্তরিত করে নেওয়া হয়। ২৭ টি ফলিত বিজ্ঞানের বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে ২৪ টিতে একাডেমিক লেখাপড়ার ব্যবস্থা রয়েছে। তন্মধ্যে ৫টি ফলিত বিজ্ঞানের বিশ্ববিদ্যালয় রাজধানী হেলসিংকি এলাকায় অবস্থিত। সেগুলো হল আরকাডা (Arcada), হাগা-হেলিয়া (Haaga-Helia), হেলসিংকি মেট্রোপোলিয়া (Helsinki Metropolia), ডায়াকনিয়া (Diaconia) এবং লাউরিয়া (Laurea)।

এখানকার উচ্চশিক্ষার কাঠামো দু’ভাগে বিভক্ত । (১) স্নাতক স্তর ও (২) স্নাতকোত্তর স্তর। স্নাতকোত্তরকে আবার দুই ভাগে ভাগ করা হয়েছে- মাস্টার্স ও ডক্টোরাল।

ফিনল্যান্ডে ১২০ ক্রেডিট সম্পন্ন মাস্টার্স করতে মোটামুটি সময় লাগে দেড় থেকে দুই বছর। তবে আপনি চাইলে আরো সময় নিয়ে শেষ করতে পারবেন। তবে আপনি চার বছর সময় পাবেন মাস্টার্স কোর্স সম্পন্ন করার জন্য। বিশ্ববিদ্যালয় গুলো আপনাকে দুই বছরেই মাস্টার্স শেষ করার জন্য উৎসাহ দিবে। স্নাতকোত্তর স্তরে ভর্তির জন্য ফিনল্যান্ডে উচ্চশিক্ষা গ্রহনে কমপক্ষে আইইএলটিএস স্কোর ৬.৫ এর প্রয়োজন হয়ে থাকে।

অন্যদিকে ডক্টরাল কোর্সে সম্পন্ন করতে মোটামুটি সময় লাগে তিন থেকে ছয় বছরের মত। তবে ডক্টরেট করার জন্য আপনাকে অবশ্যই ইংরেজী ভাষার দক্ষতা থাকতে হবে। অর্থাৎ আইইএলটিএস (IELTS) স্কোর অথবা তার সমমানের ইংরেজী ভাষা কোর্সের সার্টিফিকেট থাকা আবশ্যক ।

অন্যান্য দেশের মতো ফিনল্যান্ডেও দুই সেমিস্টারে পড়াশুনা পরিচালিত হয়ে থাকে। প্রথম সেমিস্টার আগস্ট থেকে ডিসেম্বর। আর দ্বিতীয় সেমিস্টার জানুয়ারি থেকে জুলাই।

সাধারণত ফিনল্যান্ডের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে স্নাতক পর্যায়ে হাতে গুনা দু’একটি প্রোগ্রাম ইংরেজী মাধ্যমে পরিচালিত হয়ে থাকে। আর প্রায় বাকিসবকোর্সই ফিনিস কিংবা সুইডিশ ভাষায় পরিচালিত হয়ে থাকে। এছাড়া ফিনল্যান্ডে উচ্চশিক্ষার জন্য ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হয় বলে বিদেশি শিক্ষার্থীদের ভর্তির সুযোগ কিছুটা সীমিত। তবে আপনি যদি ফিনিস কিংবা সুইডিস ভাষায় পারদর্শী হয়ে থাকেন তবে আপনার জন্য উচ্চশিক্ষায় রয়েছে শিক্ষার অগণিত সুযোগ।
তবে উচ্চশিক্ষার জন্য আবেদন করার সময় অবশ্যই আপনাকে বিস্তারিত বিষয়সমূহ ভালোভাবে জেনে নিতে হবে।

স্নাতক স্তরে পড়াশুনা করার জন্য আপনাকে ভর্তি দিতে হবে ।ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করার জন্য প্রথমে অনলাইনে আবেদন করতে হবে। আবেদনপত্র পূরণের সময় আপনি আপনার পছন্দ অনুযায়ী ক্রমানুসারে ৪টি বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম নির্বাচন করতে পারবেন। স্নাতক কোর্সে ভর্তির জন্য টোফেল (TOEFL)-এ ৫৫০ স্কোর কিংবা আইইএলটিএস (IELTS)-এ কমপক্ষে ৬.০ স্কোরসহ এইচএসসি বা এর সমমান শিক্ষাগত যোগ্যতার যেকোন ব্যক্তি আবেদন করতে পারবে।ভর্তি পরীক্ষায় সাধারণত সাধারণ গণিত, আইকিউ (IQ), বিশ্লেষণাত্মক প্রশ্ন (Analytic Questions) এবং বিষয়ভিত্তিক প্রশ্ন থাকে। ভর্তি পরিক্ষার প্রাপ্ত নম্বরের উপর ভিত্তি করে পছন্দের ক্রমানুসারে যেকোন একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির সুযোগ দেয়া হয়। ভর্তি পরীক্ষা সাধারণত এপ্রিল মাসের মাঝামাঝি সময়ে হয়ে থাকে। আর অনলাইন আবেদন করার শেষ সময় সাধারণত ফেব্রুয়ারির শেষ সপ্তাহ থাকে।

স্নাতকোত্তর স্তরে ভর্তির জন্য সাধারণত কোন ভর্তি পরীক্ষা দিতে হয় না। আপনাকে অনলাইনে আপনার পছন্দ অনুযায়ী বিশ্ববিদ্যালয় এবং প্রোগ্রাম নির্বাচন করে আবেদন করতে। যোগ্যতা এবং বিশ্ববিদ্যালযয়ের চাহিদা অনুযায়ী প্রয়োজনীয় কাগজপত্র নির্ধারিত ঠিকানায় পাঠিয়ে দিতে হবে। আপনি যদি ভর্তির জন্য বিবেচিত হোন তাহলে নির্ধারিত বিশ্ববিদ্যালয় আপনাকে চিঠি কিংবা মেইল দিয়ে জানিয়ে দিবে।

যে সব বিষয়ে পড়াশুনার সুযোগ রয়েছে , স্নাতকঃ- বৃদ্ধি ও বৃদ্ধত্বকালীন সেবা (Human Ageing and Elderly Service), আন্তর্জাতিক বাণিজ্য (International Business), প্লাস্টিক প্রযুক্তি (Plastic Technology), তথ্য প্রযুক্তি (Information Technology), পরিবেশ প্রকৌশল (Environmental Engineering), নার্সিং (Nursing), সামাজিক সেবা (Social Services), ভ্রমণ ও আতিথেয়তা ব্যবস্থাপনা (Tourism and Hospitality Management), বাণিজ্য তথ্য প্রযুক্তি (Business Information Technology) এবং ইলেকট্রোনিক্স (Electronics)।

স্নাতকোত্তরঃ- শিল্পকলার ইতিহাস (Art History), সৃজনশীল লেখা (Creative Writing), সামাজিক গবেষণা পদ্ধতি (Social Science Research Methods), বয়স্ক শিক্ষা ও জীবনব্যাপী শেখা (Adult Education and Life-long learning), অর্থনীতি (Economics), অর্থনীতি, রাষ্ট্র ও সমাজ (Economics, State and Society), গণতন্ত্র ও বৈশ্বিক পরিবর্তন (Democracy and Global Transformation), উন্নয়ন অধ্যয়ন (Development Studies), গণমাধ্যম ও বিশ্ব যোগাযোগ (Media and Global Communication),সংবাদ মাধ্যম অধ্যয়ন (Media Studies), উত্তর আমেরিকা অধ্যয়ন (North American Studies), ইউরোপ অধ্যয়ন (Europe Studies), ধর্ম, দ্বন্দ্ব ও সংলাপ (Religion, Conflict and Dialogue), আন্তর্জাতিক বাণিজ্যিক আইন (International Business Law), আন্তর্জাতিক গণ আইন (International Public Law), মেডিকেল ফিজিক্স অ্যান্ড কেমিস্ট্রি, জনস্বাস্থ্য (Public Health), প্যাথলজি, মহাকাশ গবেষণা (Space Research), বায়োকেমিস্ট্রি (Biochemistry), খাদ্য বিজ্ঞান (Food Science), খাদ্য রসায়ন (Food Chemistry), জীব-প্রযুক্তি (Biotechnology), জৈব তথ্য-প্রযুক্তি (Bioinformatics), বাস্তুবিদ্যা (Ecology), পরিবেশ বিজ্ঞান (Environmental Sciences), জীববৈচিত্র্য (Biodiversity), জৈব রসায়ন ও রাসায়নিক বিশ্লেষণ (Organic Chemistry and Chemical Analysis), জৈব রসায়ন ও রাসায়নিক জীববিজ্ঞান (Organic Chemistry and Chemical Biology), তড়িত তথ্য প্রযুক্তি (Electronic Information Technology), ফলিত গণিত (Applied Mathematics), পরিসংখ্যান (Statistics) ইত্যাদি।

প্রয়োজনীয় কাগজপত্রঃ
• সকল শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদপত্র ও মার্কসীটের ইংরেজি ভার্সন।
• সর্বশেষ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাড়পত্র।
• ভাষাগত যোগ্যতার প্রমাণপত।
• রিকমেন্ডেশন লেটার।
• মোটিভেশন লেটার।
• পাসপোর্টের ফটোকপি।

ফিনল্যান্ডের উল্লেখযোগ্য কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয়ের নামসহ তাদের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটের ঠিকানাঃ
1. University of Helsinki (http://www.helsinki.fi/university/)
2. Aalto University (http://www.aalto.fi/en/)
3. Arcada University of Applied Sciences (http://arcada.fi/en)
4. Haaga-Helia University of Applied Sciences (http://www.haaga-helia.fi/en)
5. Helsinki Metropolia University of Applied Sciences (http://www.metropolia.fi/en/)
6. Diaconia University of Applied Sciences
(http://www.diak.fi/en/Pages/default.aspx)
7. Laurea University of Applied Sciences
(http://www.laurea.fi/en/Pages/default.aspx)
8. University of Turku (http://www.utu.fi/fi/Sivut/home.aspx)
9. Turku University of Applied Sciences
(http://www.tuas.fi/public/default.aspx?nodeid=7563)
10. University of Tampere (http://www.uta.fi/english/)
11. Tampere University of Technology (http://www.tut.fi/en/)
12. Tampere University of Applied Sciences (http://www.tamk.fi/en)
13. University of Jyvaskyla (https://www.jyu.fi/en/)
14. Jyvaskyla University of Appliied Sciences (http://www.jamk.fi/english/)
15. University of Oulu (http://www.oulu.fi/english/)
16. Oulu University of Applied Sciences (http://www.oamk.fi/english/)
17. Abo Akademi University (http://www.abo.fi/?lang=en)
18. Lappeenranta University of Technology (http://www.lut.fi/web/en/)
19. University of Eastern Finland (http://www.uef.fi/en/home)
20. Satakunta University of Applied Sciences (http://www.samk.fi/english)
21. Centria University of Applied Sciences
(http://web.centria.fi/Default.aspx)
22. Hank University of Applied Sciences
(http://portal.hamk.fi/portal/page/portal/HAMK/In_English)
23. Kajaani University of Applied Sciences (http://www.kamk.fi/en)
24. Karelia University of Applied Sciences (http://www.karelia.fi/en/)
25. Kemi-Tornio University of Applied Sciences
(http://www.tokem.fi/In-English/Home)