The Rising Campus
News Media
বৃহস্পতিবার, ২রা ফেব্রুয়ারি, ২০২৩

প্রতিষ্ঠার ২৭ বছরে পা দিল চবি সাংবাদিক সমিতি

চবি সংবাদদাতা: দেখতে দেখতে ২৬ বছর পার করে ২৭ এ পা দিল চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতি চবিসাস। ‘সংবাদ লেখনীতে ছাব্বিশ পেরিয়ে’ প্রতিপাদ্যে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির (চবিসাস) ২৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে মঙ্গলবার (৬ ডিসেম্বর) বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের চাকসু ভবনের সামনে থেকে একটি আনন্দ শোভাযাত্রার মধ্য দিয়ে উদযাপন শুরু হয়।

শোভাযাত্রা শেষে দুপুর একটায় চবির কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগার মিলনায়তনে কেক কেটে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদ্বোধন করেন চবি উপ-উপাচার্য অধ্যাপক বেনু কুমার দে। পরে ‘সাংবাদিকতার সংকট ও সম্ভাবনা: প্রেক্ষিত বাংলাদেশ’ শীর্ষক একটি আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সাধারণ সম্পাদক রায়হান উদ্দিনের সঞ্চালনায় এবং চবিসাস সভাপতি সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন চবি সাংবাদিক সমিতির সাবেক সভাপতি ইমরান হোসাইন ও বর্তমান যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব এ রহমান।

সভায় অতিথির বক্তব্যে চবি উপ উপাচার্য বলেন, সাংবাদিকরা জাতির দর্পণ। তাদের লেখনী জনগণের কণ্ঠস্বর হিসেবে কাজ করে। তারা চাইলে একটি জাতিকে যেমন সমৃদ্ধ করতে পারে, তেমনি চাইলে নিচেও নামাতে পারে।

কারণ সাংবাদিকদের লেখালেখির মাধ্যমে মানুষ সবকিছু সম্পর্ক জানতে পারে। তাই বস্তুনিষ্ঠতার সঙ্গে সাংবাদিকতা চর্চার আহ্বান থাকবে আপনাদের প্রতি।

অনুষ্ঠানের মূখ্য আলোচক যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদ বলেন, সাংবাদিকতার পরিসর দিনদিন বড় হচ্ছে। অনেক সংকট থাকলেও এর সম্ভাবনাও ব্যাপক। গণমাধ্যম হলো একটি রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ। কিন্তু শক্তিশালী এ স্তম্ভকে আমরা কতটুকু প্রাতিষ্ঠানিক রুপ দিতে পেরেছি, সেটাও ভাবার সময় এসেছে।

তিনি আরও বলেন, জনগণের কণ্ঠস্বর হিসেবে সাংবাদিকদের যেকোনও স্থানে অবাধ বিচরণের সুযোগ এবং অধিকার রয়েছে। তাই সাংবাদিকদের অধিকার রক্ষা করতে হবে আমাদের। উন্নত রাষ্ট্রগুলো যেভাবে সাংবাদিকতাকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে গেছে। তাই এ মহান পেশাকে সমৃদ্ধের লক্ষ্যে আমাদের কাজ করা উচিৎ।

সমাপনী বক্তব্যে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির সভাপতি সাইফুল ইসলাম বলেন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতি সবসময় সাংবাদিকদের অধিকার রক্ষায় কাজ করেছে। আমরা সত্যকে সত্য এবং মিথ্যাকে মিথ্যা বলতে চাই।

বিশ্ববিদ্যালয়ে বিভিন্ন মতাদর্শের মানুষ থাকতে পারে, তবে আমাদের কাজ সবাইকে সমান চোখে দেখা। আমরা সেটাই চেষ্টা করি। যাদের অবদানে গত ২৬ বছর এ সংগঠন এগিয়েছে, তাদেরকে আজকের এ দিনে শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করছি।

এছাড়া বক্তব্য রাখেন চবির ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার অধ্যাপক এসএম মনিরুল হাসান, প্রক্টর ড. রবিউল হাসান ভূঁইয়া, সিন্ডেকেট সদস্য অধ্যাপক ড. আবুল মনসুর, অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ খাইরুল ইসলাম এবং এছাড়া বক্তব্য রাখেন চবিসাস সাবেক সভাপতি এবং যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক শাহাব উদ্দিন নিপু।

১৯৯৬ সালে মাত্র ১০ জন সদস্য নিয়ে যাত্রা শুরু করে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতি।১৯৯৭-৯৮ সেশনে সভাপতি আহমাদ করিম ও সাধারণ সম্পাদক ছিলেন আব্দুল মালেক।গত বছর পচিশ বছর পূর্তি উপলক্ষে তৎকালীন কমিটির উদ্যোগে ২০২১ সালের ১৮ জানুয়ারী রজত জয়ন্তী অনুষ্ঠিত হয়।তখন চবিসাসে ইমরান হোসাইন সভাপতি ও মুনাওয়ার রিয়াজ মুন্না সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্বরত ছিলেন।

বর্তমানে চবি সাংবাদিক সমিতির ২৩ তম কমিটির সভাপতি সাইফুল ইসলাম,সাধারণ সম্পাদক রায়হান উদ্দিন ,কার্য নির্বাহী কমিটির সাত জন সদস্য সহ মোট ৩৫ জন সদস্য কর্মরত।

1
You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.

  1. হোম
  2. ক্যাম্পাস
  3. প্রতিষ্ঠার ২৭ বছরে পা দিল চবি সাংবাদিক সমিতি

প্রতিষ্ঠার ২৭ বছরে পা দিল চবি সাংবাদিক সমিতি

চবি সংবাদদাতা: দেখতে দেখতে ২৬ বছর পার করে ২৭ এ পা দিল চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতি চবিসাস। 'সংবাদ লেখনীতে ছাব্বিশ পেরিয়ে' প্রতিপাদ্যে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির (চবিসাস) ২৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে মঙ্গলবার (৬ ডিসেম্বর) বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের চাকসু ভবনের সামনে থেকে একটি আনন্দ শোভাযাত্রার মধ্য দিয়ে উদযাপন শুরু হয়।

শোভাযাত্রা শেষে দুপুর একটায় চবির কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগার মিলনায়তনে কেক কেটে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদ্বোধন করেন চবি উপ-উপাচার্য অধ্যাপক বেনু কুমার দে। পরে 'সাংবাদিকতার সংকট ও সম্ভাবনা: প্রেক্ষিত বাংলাদেশ' শীর্ষক একটি আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সাধারণ সম্পাদক রায়হান উদ্দিনের সঞ্চালনায় এবং চবিসাস সভাপতি সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন চবি সাংবাদিক সমিতির সাবেক সভাপতি ইমরান হোসাইন ও বর্তমান যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব এ রহমান।

সভায় অতিথির বক্তব্যে চবি উপ উপাচার্য বলেন, সাংবাদিকরা জাতির দর্পণ। তাদের লেখনী জনগণের কণ্ঠস্বর হিসেবে কাজ করে। তারা চাইলে একটি জাতিকে যেমন সমৃদ্ধ করতে পারে, তেমনি চাইলে নিচেও নামাতে পারে।

কারণ সাংবাদিকদের লেখালেখির মাধ্যমে মানুষ সবকিছু সম্পর্ক জানতে পারে। তাই বস্তুনিষ্ঠতার সঙ্গে সাংবাদিকতা চর্চার আহ্বান থাকবে আপনাদের প্রতি।

অনুষ্ঠানের মূখ্য আলোচক যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদ বলেন, সাংবাদিকতার পরিসর দিনদিন বড় হচ্ছে। অনেক সংকট থাকলেও এর সম্ভাবনাও ব্যাপক। গণমাধ্যম হলো একটি রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ। কিন্তু শক্তিশালী এ স্তম্ভকে আমরা কতটুকু প্রাতিষ্ঠানিক রুপ দিতে পেরেছি, সেটাও ভাবার সময় এসেছে।

তিনি আরও বলেন, জনগণের কণ্ঠস্বর হিসেবে সাংবাদিকদের যেকোনও স্থানে অবাধ বিচরণের সুযোগ এবং অধিকার রয়েছে। তাই সাংবাদিকদের অধিকার রক্ষা করতে হবে আমাদের। উন্নত রাষ্ট্রগুলো যেভাবে সাংবাদিকতাকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে গেছে। তাই এ মহান পেশাকে সমৃদ্ধের লক্ষ্যে আমাদের কাজ করা উচিৎ।

সমাপনী বক্তব্যে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির সভাপতি সাইফুল ইসলাম বলেন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতি সবসময় সাংবাদিকদের অধিকার রক্ষায় কাজ করেছে। আমরা সত্যকে সত্য এবং মিথ্যাকে মিথ্যা বলতে চাই।

বিশ্ববিদ্যালয়ে বিভিন্ন মতাদর্শের মানুষ থাকতে পারে, তবে আমাদের কাজ সবাইকে সমান চোখে দেখা। আমরা সেটাই চেষ্টা করি। যাদের অবদানে গত ২৬ বছর এ সংগঠন এগিয়েছে, তাদেরকে আজকের এ দিনে শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করছি।

এছাড়া বক্তব্য রাখেন চবির ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার অধ্যাপক এসএম মনিরুল হাসান, প্রক্টর ড. রবিউল হাসান ভূঁইয়া, সিন্ডেকেট সদস্য অধ্যাপক ড. আবুল মনসুর, অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ খাইরুল ইসলাম এবং এছাড়া বক্তব্য রাখেন চবিসাস সাবেক সভাপতি এবং যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক শাহাব উদ্দিন নিপু।

১৯৯৬ সালে মাত্র ১০ জন সদস্য নিয়ে যাত্রা শুরু করে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতি।১৯৯৭-৯৮ সেশনে সভাপতি আহমাদ করিম ও সাধারণ সম্পাদক ছিলেন আব্দুল মালেক।গত বছর পচিশ বছর পূর্তি উপলক্ষে তৎকালীন কমিটির উদ্যোগে ২০২১ সালের ১৮ জানুয়ারী রজত জয়ন্তী অনুষ্ঠিত হয়।তখন চবিসাসে ইমরান হোসাইন সভাপতি ও মুনাওয়ার রিয়াজ মুন্না সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্বরত ছিলেন।

বর্তমানে চবি সাংবাদিক সমিতির ২৩ তম কমিটির সভাপতি সাইফুল ইসলাম,সাধারণ সম্পাদক রায়হান উদ্দিন ,কার্য নির্বাহী কমিটির সাত জন সদস্য সহ মোট ৩৫ জন সদস্য কর্মরত।

পাঠকের পছন্দ

মন্তব্য করুন