আগের নিয়মে হবে না চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি

বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক নিয়োগের লক্ষ্যে চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশের কাজ শুরু করেছে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ (এনটিআরসিএ)। এ লক্ষ্যে টেলিটক বাংলাদেশ লিমিটেডের সাথে বৃহস্পতিবার (৩ মার্চ) বৈঠক করেছে এনটিআরসিএ। বৈঠকে চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তিতে বেশ কিছু পরিবর্তনের সুপারিশ করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে এনটিআরসিএ কার্যালয়ে গিয়ে জানা যায়, এদিন সকালে টেলিটকের সাথে বৈঠকে বসে এনটিআরসিএ। বৈঠকে চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশের লক্ষ্যে জেলা ও উপজেলা কর্মকর্তাদের তথ্য সংগ্রহ, শূন্য পদের তথ্য, আবেদন প্রক্রিয়াসহ নানা বিষয় নিয়ে আলোচনা করেছেন কর্মকর্তারা। এতে বেশ কিছু পরিবর্তনের পরামর্শ দেয়া হয়েছে। তৃতীয় গণবিজ্ঞপ্তির আদলে চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ না করারও সুপারিশ করা হয়েছে ওই সভায়।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে বৈঠকে উপস্থিত এনটিআরসিএ’র এক কর্মকর্তা জানান, ‘চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশের আগে একটি স্ট্রাকচার তৈরি করা হবে। এই কাঠামো অনুযায়ী পরবর্তী কার্যক্রম পরিচালনা করা হবে। কাঠামোতে নতুন অনেক কিছু যুক্ত করার পরামর্শ দেয়া হয়েছে। তৃতীয় গণবিজ্ঞপ্তি যেভাবে হয়েছে সেভাবে চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি হবে না বলেও জানান ওই কর্মকর্তা।’

এদিকে বৈঠক সূত্রে জানা গেছে, এখনো কয়েকটি জেলা ও উপজেলা কর্মকর্তারা তাদের তথ্য পাঠায়নি। এই তথ্য পাওয়ার পর প্রতিষ্ঠান প্রধানদের কাছ থেকে শূন্য পদের তথ্য সংগ্রহের জন্য বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করবে এনটিআরসিএ। শূন্য পদের তথ্য সংগ্রহের পর চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হবে। তবে এই প্রক্রিয়া কোন মাসে শেষ করা হবে সে বিষয়ে কোনো আলোচনা হয়নি।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে এনটিআরসিএ চেয়ারম্যান (অতিরিক্ত সচিব) এনামুল কাদের খান বলেন, আজ টেলিটকের সাথে আমাদের একটি সভা ছিল। সভায় চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তির নানা বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়েছে। কিছু পরামর্শও এসেছে। সেগুলো নিয়ে শিগগিরই কাজ শুরু করা হবে।

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শূন্য পদের তথ্য কবে সংগ্রহ করা হবে—জানতে চাইলে তিনি আরও বলেন, এটি বলা মুশকিল। চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশের লক্ষ্যে আমরা জেলা ও উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তাদের তথ্য সংগ্রহ করছি। এটি শেষ হওয়ার পর শূন্য পদের তথ্য সংগ্রহ করা হতে পারে।

প্রসঙ্গত, মুজিব শতবর্ষে বেসরকারি স্কুল-কলেজ, মাদ্রাসা এবং কারিগরি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষক নিয়োগের চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশের দাবিতে বেশ কিছুদিন ধরে আন্দোলন করে আসছেন নিবন্ধিত প্রার্থীরা। সম্প্রতি জাতীয় প্রেসক্লাবে অনশন কর্মসূচিও পালন করেন তারা।

প্রেসক্লাবের ওই অনশন কর্মসূচি শেষে এনটিআরসিএর সামনে অনশন পালন করেন চাকরিপ্রত্যাশীরা। এনটিআরসিএর অনশন চলাকালীন আন্দোলনরতদের একটি প্রতিনিধি দল এনটিআরসিএর চেয়ারম্যানের সাথে সাক্ষাৎ করেন। চেয়ারম্যানের আশ্বাসে পরবর্তীতে অনশন স্থগিত করেন তারা।