অধিনায়কত্বকে চ্যালেঞ্জ নয়, সুযোগ হিসেবে দেখছেন মুমিনুল

বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের ২৮ জন ক্রিকেটারের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সে বৈঠক করেছেন হেড কোচ রাসেল ডমিঙ্গো। সবাইকে ফিট থাকার পরামর্শ দিয়েছেন প্রধান কোচ। এদিকে, বাংলাদেশের হয়ে অধিনায়কত্বটাকে চ্যালেঞ্জিং হিসেবে নয়, বরং ক্রিকেট ক্যারিয়ারে এটাকে একটা সুযোগ হিসেবেই দেখছেন মুমিনুল হক।

গেলো বছরের অক্টোবরে সাকিব নিষিদ্ধ হবার পর বাংলাদেশের ক্রিকেটে বেশ ধাক্কা লাগে। লাল বলের ক্রিকেটে নতুন অধিনায়কের সন্ধানে নামে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। টেস্টে ক্রিকেট সবচেয়ে বেশি ৪০-এর ওপর ব্যাটিং গড় থাকা মুমিনুলে আস্থা ক্রিকেট বোর্ডের। অধিনায়ক মুমিনুলের প্রথম অ্যাসাইনমেন্ট ভারত সফর এরপর পাকিস্তান। এই দুই দলের সাথে তিন টেস্টের সবগুলোতে ইনিংস ব্যবধানে হারে টাইগাররা। অবশ্য সর্বশেষ ঘরের মাটিতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ইনিংস ব্যবধানে জেতার স্বাদ পায় মুমিনুলের দল। বাস্তবিক অর্থে এলিট ফরম্যাটে বাংলাদেশের দুর্বলতা স্পষ্টই। এমনি এক ফরম্যাটের অধিনায়কত্বের বিশাল চাপ মুমিনুলের কাঁধে। তবে, দায়িত্বটাকে উপভোগ করতে চান কক্সবাজারের এই ব্যাটসম্যান।

বাংলাদেশ টেস্ট ক্রিকেট দলের অধিনায়ক মুমিনুল হক বলেন, বাংলাদেশের হয়ে অধিনায়কত্বটাকে চ্যালেঞ্জিং হিসেবে নয়। বরং ক্রিকেট ক্যারিয়ারে এটাকে সুযোগ হিসেবেই দেখছি। এটা ঠিক যে আমরা সবাই এখন মাঠের বাইরে। খেলা ও অনুশীলন বন্ধ। তবে এই সময়টায় হতাশ না হয়ে, একে আগামীর সঞ্চয় হিসেবে ভাবা যেতে পারে।’’

করোনার প্রতাপে বিশ্বজুড়ে, সেই ধারায় লকডাউনে গেছে বাংলাদেশের ক্রিকেট গেলো মার্চে। করোনার আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলছে। কবে ফিরবে খেলা মাঠে তাও আছে চরম অনিশ্চয়তার মুখে। তিন মাস মাঠে খেলা না থাকায় মুমিনুল মুখিয়ে আছেন ক্রিকেট উদ্যানে ফিরতে।

এদিকে, বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের শ্রীলঙ্কা সফর নিয়ে চলছে নানা জল্পনা-কল্পনা। সিরিজ হবে কিনা তা নিয়ে ধোঁয়াশা থাকলেও, হেড কোচ ঠিকই পরিকল্পনা করছে দক্ষিণ আফ্রিকায় বসে। মঙ্গলবার বিকেলে বাংলাদেশ দলের ২৮ জন ক্রিকেটারদের সাথে ভিডিও কনফারেন্সে কথা বলেছেন হেড কোচ রাসেল ডমিঙ্গো। প্রায় এক ঘণ্টার এই বৈঠকে ক্রিকেটারদের ফিটনেস ধরে রাখার পরামর্শ দিয়েছেন রাসেল। জানা গেছে, শ্রীলঙ্কা সিরিজ নিশ্চিত না হলেও, ক্রিকেটারদের ম্যাচ খেলার জন্য মানসিকভাবে প্রস্তুত থাকার কথা বলেছেন হেড কোচ।